হোন্ডা আনলো নতুন দামে ‘নতুন লিভো’

- ছবি: মানবকণ্ঠ

poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ২৫ জানুয়ারি ২০২১, ২০:৩২

দেশের মোটর বাইকের বাজারে ১১০ সিসি মডেলের মধ্যে ‘সর্বাধুনিক সুবিধা’ নিয়ে লিভো সিরিজের নতুন বাইক বাজারজাতকরণ শুরু করল বাংলাদেশ হোন্ডা প্রাইভেট লিমিটেড।

বাংলাদেশের গ্রাহকের চাহিদার প্রতি খেয়াল রেখে হোন্ডার আরএনডি বিভাগের পরামর্শ অনুযায়ী মুন্সিগঞ্জের সর্বাধুনিক কারখানায় প্রস্তুতকৃত লিভোর দুটি ভ্যারিয়েন্স-লিভো ড্রাম এক লাখ তিন হাজার ৯০০ টাকা এবং লিভো ডিস্ক পাওয়া যাবে এক লাখ আট হাজার ৯০০ টাকায়।

অভিনব নকশা এবং উদ্ভাবনী সেবার মাধ্যমে গ্রাহকের আস্থা অর্জন করা হোন্ডা লিভো ২০১৭ সালের জুন মাসে বাংলাদেশের বাজারে আসার পরে মাত্র ৩৭ মাসের মধ্যেই ৫০ হাজার ইউনিট বিক্রির মাইলফলক অতিক্রম করে লিভো দেশব্যাপি ব্যাপক সারা পায়।

এরই ধারাবাহিকতায় আজ নতুনরূপে, নতুন দামে বাংলাদেশ হোন্ডা উন্মোচন করলো লিভো। স্পোর্টি লুক এবং ডিজিটাল এনালগ মিটার এর পাশাপাশি নতুন লিভোতে রয়েছে এনার্জিটিক ফ্রন্ট লুক এবং কার্ভড ফুয়েল ট্যাংক। হোন্ডা ইকো টেকনোলজি বা এইচইটি সম্বলিত ১১০ সিসি সক্ষমতার ইঞ্জিন ব্যবহারে প্রতি লিটার জ্বালানী তেলে ৭৪ কিলোমিটার পর্যন্ত মাইলেজ যাওয়া যাবে।

বাংলাদেশের রাস্তার অবস্থা অনুযায়ী হোন্ডা লিভোতে রয়েছে ১২৮৫ মিলিমিটার লম্বা হুইল বেইজ, ৫ স্টেপ এডজাস্টেবল রিয়ার সাস্পেন্সন, ক্লাস লিডিং ১৮০ মিমি উচ্চ গ্রাউন্ড ক্লিয়ারেন্স এবং একটি আপরাইট হ্যান্ডেল পজিশন যা চালক এবং সহযাত্রীর চলাচলকে আরামদায়ক করবে।

লিভোতে রয়েছে ডিস্ক ব্রেক এবং এইচইটি টায়ার প্রযুক্তি যা ব্রেকিং পারফরমেন্সকে উন্নত করে এবং চলাচলকে নিরাপদ করে। পাশাপাশি, প্রতিটি যাত্রাকে সহজ করবে সিলড চেইন, এমএফ ব্যাটারি, টিউবলেস টায়ার এবং বায়ু শুদ্ধকরণ সুবিধা। সবকিছু নিয়ে ১১০ সিসি মডেলের বাইকের মধ্যে অর্ধলাখ কাস্টমারের কাছে ‘লিভো সেরা’।

বাংলাদেশে লিভো হোন্ডার সকল গ্রাহকদের ধন্যবাদ জানিয়ে ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা হিমিহিকো কাতসুকি বলেন, লিভোর ৫০ হাজার ইউনিট বিক্রি প্রতিষ্ঠানটির জন্য অনন্য অর্জন। তিনি বলেন, বাংলাদেশের উদীয়মান বাজারে সাশ্রয়ী মুল্যে আধুনিক বাইক এবং উদ্ভাবনী সেবা প্রদানের মাধ্যমে গ্রাহকের আস্থা ধরে রেখেছে হোন্ডা এবং ভবিষ্যতেও অব্যাহত থাকবে।

হোন্ডা বাংলাদেশের বিক্রয় এবং বিপনন বিভাগের সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট নরেশ কুমার রতন বলেন, দেশের বাজারে ১১০ সিসি মডেলের বাইকের মধ্যে লিভো সেরা হয়ে ওঠার পেছনে রয়েছে আধুনিক ডিজাইন, ইঞ্জিনের সক্ষমতা এবং অত্যাধুনিক হোন্ডা ইকো টেকনোলজি প্রযুক্তি ।

প্রাপ্যতা এবং মূল্য: লাল, নীল এবং গ্রে এই তিন রঙে জানুয়ারি মাসের মধ্যে দেশজুড়ে হোন্ডার সকল পরিবেশক এবং ডিলার শোরুমে পাওয়া যাচ্ছে লিভো। বিক্রয় পরবর্তী ২ বছর অথবা ২০ হাজার কিলোমিটার (যেটি আগে হবে) পর্যন্ত ওয়ারেন্টি এবং চারটি সেবা বিনামূল্যে পাবেন গ্রাহক। আরো জানা যাবে, bdhonda.com এ। নতুন লিভো মডেলের বৈশিষ্ট্য এবং সুবিধা নিয়ে বিষয়ভিত্তিক উপস্থাপনা করেন বাংলাদেশ হোন্ডার মার্কেটিং বিভাগের প্রধান গিয়াস উদ্দিন সজীব।

বিস্তারিত জানা যাবে হোন্ডা বাংলাদেশের ফেইসবুক পেইজে www.facebook.com/bdhondaofficial and Official website- https://www.bdhonda.com/media-center/press-release-এ

মানবকণ্ঠন/আইএইচ






ads
ads