manobkantha

‘দেশে সারের সংকট হবে না’

দেশে সারের সংকট যাতে না হয় সেজন্য বিভিন্ন দেশ থেকে সার সংগ্রহের প্রক্রিয়া চলছে বলে জানিয়েছেন কৃষিমন্ত্রী ড.মো. আব্দুর রাজ্জাক।

তিনি বলেন, ‘সংকট যাতে না হয় সেজন্য বিভিন্ন দেশ থেকে সার সংগ্রহের প্রক্রিয়া চলছে। শিল্প মন্ত্রণালয় বিভিন্ন মাধ্যমে সার সংগ্রহ করছে। আগামী বোরো মৌসুম পর্যন্ত দেশে সারের কোনো সংকট হবে না।’

আজ বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে সারের সার্বিক পরিস্থিতি, খাদ্যের মজুত, আগামী বোরো মৌসুম, আমনের লক্ষ্যমাত্রাসহ বিভিন্ন বিষয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এসব কথা বলেন মন্ত্রী।

কৃষিমন্ত্রী বলেন, জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারিতে অনেক সার দরকার হয়। শিল্প মন্ত্রণালয় বিভিন্ন মাধ্যমে সার সংগ্রহ করছে। কৃষি মন্ত্রণালয় এবং বিএডিসি চেষ্টা করছে এমওপি, টিএসপি, ডিএপি সার সংগ্রহের।

তিনি বলেন, আমাদের সার আসে মূলত বেলারুশ, মরক্কো, তিউনিসিয়া, রাশিয়া থেকে। কিন্তু ইউক্রেন যুদ্ধের পর সারের দাম অস্বাভাবিকভাবে বেড়েছে। এখন কানাডা থেকে সার আনার জন্য সবাই চেষ্টা করছে। এই সুযোগে কানাডা সারের দাম বাড়িয়েছে। তারপরও তারা বলছে, আমাদেরকে পাঁচ লাখ টন পটাশিয়াম সার দেবে।

কৃষিমন্ত্রী বলেন, ‘সার নিয়ে কিছুটা দুশ্চিন্তা আছে। তবে আমরা সার ক্রয়ের উদ্যোগ গ্রহণ করেছি। ইনশাআল্লাহ বোরো মৌসুমে সারের কোনো সংকট হবে না। যদি না কোনো অস্বাভাবিক পরিস্থিতি তৈরি না হয়।’

তিনি বলেন, অনেক কৃষক সার কিনে রাখতে চাচ্ছে। কিছু কিছু ব্যবসায়ী, ডিলার সারের মজুত করতে চায়। এটার বিরুদ্ধে আমরা ব্যবস্থা নিচ্ছি।

তিনি সাংবাদিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেন, আপনাদের কাছে এ রকম কোনো তথ্য থাকলে আমাদের জানালে সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা নেব। আতঙ্ক সৃষ্টি হয় এমন সংবাদ প্রচার না করার জন্য তিনি সবার প্রতি অনুরোধ জানান।

মানবকণ্ঠ/এআই