manobkantha

স্ত্রীর পরকীয়া সইতে না পেরে ফেসবুক লাইভে স্বামীর আত্মহত্যা

মাহবুব আলম আরিফ, মুরাদনগর (কুমিল্লা)

স্ত্রীর পরকীয়া সইতে না পেরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক লাইভে এসে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন সবুজ সরকার (২৫) নামে এক প্রবাসী যুবক। গত সোমবার বাংলাদেশ সময় রাত ১১টার দিকে সৌদি আরবের তায়েফে ব্যাক্তিগত ফেইসবুক আইডিতে লাইভে এসে আত্মহত্যা করেন তিনি।

নিহত সবুজ সরকার কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার বাঙ্গরা বাজার থানাধীন টনকী ইউনিয়নের মাজুর গ্রামের মৃত জাহাঙ্গীর আলম সরকারের ছেলে।

নিহত সবুজের ফুফু বিলকিস বেগম ও চাচাতো ভাই আরিফুর রহমান মানিক জানায়, সবুজ একসময় গাড়ি চালক ছিলো সেই সুবাদে পার্শবর্তী বাইড়া গ্রামের কবির হোসেনের মেয়ে মুক্তা আক্তারের সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। তবে এ বিষয়ে জানতো না সবুজের পরিবারের লোকজন। গত ৫ বছর আগে ভাগ্য পরিবর্তনের আসায় পারি জমায় সৌদি আরবে। সেখানে যাওয়ার ৮ মাসের মাথায় প্রেমের সম্পর্ক বিয়েতে পরিনত করতে পরিবারের লোকজনকে রাজি করায় সবুজ। মোবাইল ফোনের মাধ্যমে বিয়ে সম্পন্ন হয় তাদের। বিয়ের পর দু’বছর বেশ ভালো ছিলো তাদের সম্পর্ক। এরই মধ্যে মুক্তা বেশ কয়েকজন ছেলের সঙ্গে সম্পর্ক গড়ে তুলে। এমনকি কয়েকবার বাড়ি থেকে পালিয়ে গিয়ে ১০ থেকে ১৫ দিন বাহিরে থেকে আবার বাড়ি ফিরে আসে।

বিষয়টি জানার পর সবুজ তাকে ক্ষমা করে দিয়ে আবারো তার পরিবারে গিয়ে থাকার জন্য প্রস্তাব করে মুক্তাকে। সবুজ তার সকল উপার্জন স্ত্রীর হাতে তুলে দিবে এমন শর্তে সংসার করতে রাজি হয় মুক্তা। এভাবে কেটে যায় আরো দু’বছর। কিছুদিন পূর্বে আবারো উপজেলার ত্রিশ গ্রামের এক যুবকের সাথে পালিয়ে যায় মুক্তা। বিষয়টি কিছুতেই মেনে নিতে পারেনি সবুজ। তাই সে তার ফেইসবুক লাইভে এসে আত্মহত্যা করে।

এদিকে স্ত্রীর পরকীয়ায় স্বামীর আত্মহত্যার ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। এ ঘটনায় স্ত্রী মুক্তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছে এলাকাবাসী।

বাঙ্গরা বাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুজ্জামান তালুকদার জানান, আত্মহত্যার বিষয়টি আমি শুনেছি, তবে বিস্তারিত এখনো জানতে পারিনি। তবে গত ৪ ডিসেম্বর সবুজের স্ত্রী তার মাকে নির্যাতন করে এমন একটি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপেক্ষে দোষীর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।