করোনায় ঝড়ল আরো ৪৬ প্রাণ, আক্রান্ত ৩৪৮৯

করোনা
- ফাইল ছবি

poisha bazar

  • ডেস্ক রিপোর্ট
  • ০৮ জুলাই ২০২০, ১৪:৩৫,  আপডেট: ০৮ জুলাই ২০২০, ১৫:০০

মহামারি করোনায় আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরও ৪৬ জন মারা গেছেন। এ নিয়ে করোনায় দেশে মোট মারা গেলেন দুই হাজার ১৯৭ জন।

এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন আরও ৩৪৮৯ জন। এ নিয়ে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল এক লাখ ৭২ হাজার ১৩৪ জনে।

বুধবার (৮ জুলাই) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনাভাইরাস বিষয়ক নিয়মিত হেলথ বুলেটিনে এ তথ্য জানানো হয়। অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা অনলাইনে বুলেটিন উপস্থাপন করেন।

বুলেটিনে বরাবরের মতো ডা. নাসিমা করোনাভাইরাস থেকে সুরক্ষিত থাকতে সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালনের আহ্বান জানান।

অধ্যাপক নাসিমা সুলতানা জানান, করোনাভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ১৫ হাজার ৮৮৩টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। ১৫ হাজার ৬৭২টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এ নিয়ে দেশে মোট নমুনা পরীক্ষা করা হলো আট লাখ ৮৯ হাজার ১৫২টি। নতুন নমুনা পরীক্ষায় করোনা শনাক্ত হয়েছে আরও তিন হাজার ৪৮৯ জনের মধ্যে। ফলে শনাক্ত করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল এক লাখ ৭২ হাজার ১৩৪ জনে। আক্রান্তদের মধ্যে মারা গেছেন আরও ৪৪ জন। এ নিয়ে মোট মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ১৯৭ জনের।

গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন আরও ২ হাজার ৭৩৬ জন। এতে মোট সুস্থ রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৮০ হাজার ৮৩৮ জনে। গত ২৪ ঘণ্টায় যে ৪৬ জন মারা গেছেন, তাদের মধ্যে পুরুষ ৩৮ জন এবং নারী ৮ জন।

বুলেটিনে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষার তুলনায় রোগী শনাক্তের হার ২২ দশমিক ২৬ শতাংশ। সবমিলিয়ে, নমুনা পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ১৯ দশমিক ৩৬ শতাংশ। এখন পর্যন্ত রোগী শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৪৭ দশমিক ৯৬ এবং মৃত্যুর হার এক দশমিক ২৮ শতাংশ।

মঙ্গলবার ৫৫ জনের প্রাণ কেড়ে নিয়েছিল করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯)। হিসেব অনুযায়ী গতকাল পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছিল দুই হাজার ১৫১ জনে। একইদিন আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছিলেন আরও তিন হাজার ২৭ জন। গতকাল পর্যন্ত মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ছিল এক লাখ ৬৮ হাজার ৬৪৫ জন।

এদিকে গেল ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ২লাখ ৭ হাজার ৭৫২ জন। মারা গেছেন ৫৫১২ জন। আর একই সময়ে সুস্থ হয়েছেন প্রায় দুই লাখ মানুষ।

এনিয়ে সারা বিশ্বে করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে এক কোটি ১৯ লাখ ৪৯ হাজার ২৮১ জনে। আর মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৫ লাখ ৪৬ হাজার ৬০১ জন। সুস্থ হয়েছেন ৬৮ লাখ ৪৯ হাজার ৫৪৫ জন।

বুধবার সকাল পর্যন্ত করোনা নিয়ে আপডেট দেয়া ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটার এ তথ্য জানিয়েছে।

চীনের উহানে করোনা সংক্রমণ শুরু হলেও ভাইরাসটির বেশি প্রকোপ আমেরিকা ও দক্ষিণ এশিয়ায়। নতুন করে আক্রান্তের রেকর্ড হয়েছে চীন-জাপানেও। ফলে দ্বিতীয় দফার সংক্রমণ নিয়ে শঙ্কা তৈরি হয়েছে।

করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে প্রথম অবস্থানে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। করোনায় সবচেয়ে বিপর্যস্ত যুক্তরাষ্ট্রে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৩০ লাখ ৯৭ হাজার ৮৮ জন। যুক্তরাষ্ট্রে করোনার আঘাতে মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৩৩ হাজার ৯৭২ জনের। করোনায় মোট মৃতের দিক থেকেও প্রথমে রয়েছে দেশটি। দেশটিতে এ পর্যন্ত সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১৩ লাখ ৫৪ হাজার ৮৬৩ জন।

করোনায় আক্রান্তের থেকে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে ব্রাজিল। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১৬ লাখ ৭৪ হাজার ৬৫৫ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং দেশটিতে মৃত্যু হয়েছে ৬৬ হাজার ৮৬৮ জনের। আর এ পর্যন্ত ব্রাজিলে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১০ লাখ ৭২ হাজার ২১৯ জন।

করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে রাশিয়াকে টপকে তৃতীয় অবস্থানে উঠে আসা ভারতে মোট ৭ লাখ ৪৩ হাজার ৪৮১ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। আর দেশটিতে মৃত্যু হয়েছে ২০ হাজার ৬৫৩ জন এবং সুস্থ হয়েছেন ৪ লাখ ৫৭ হাজার ৫৮ জন।

চতুর্থ অবস্থানে থাকা রাশিয়ায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৬ লাখ ৯৪ হাজার ২৩০ জন আর করোনায় মৃত্যু হয়েছে ১০ হাজার ৪৯৪ জনের।

বাংলাদেশে করোনাভাইরাস প্রথম শনাক্ত হয় গত ৮ মার্চ। প্রথম মৃত্যু হয় ১৮ মার্চ।

মানবকণ্ঠ/আরএস

 





ads






Loading...