শেখ হাসিনা ভিআইপি কালচারে বিশ্বাসী নয় : কাদের

শেখ হাসিনা ভিআইপি কালচারে বিশ্বাসী নয় : কাদের
- ফাইল ছবি

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ২৮ জুন ২০২০, ১৪:২৭

শেখ হাসিনা সরকার ভিআইপি কালচারে বিশ্বাসী নয় বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। সরকারি হাসপাতালসহ চিকিৎসা বিষয়ক সংশ্লিষ্ট সবাইকে অনুরোধ করে তিনি বলেন, সাধারণ রোগী ও উচ্চবিত্ত রোগীদের কোনো বাছবিচার নয়, সবাইকে সমান চোখে দেখে চিকিৎসা করুন। সরকার ভিআইপি কালচারে বিশ্বাসী নয় সরকার এ সংকটে এমন চর্চাকে নিরুৎসাহিত করে।

রোববার (২৮ জুন) রাজধানীর সংসদ ভবন এলাকায় সরকারি বাসভবনে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে একথা বলেন তিনি।

সরকারের দুর্নীতি বিরোধী অবস্থান আবারও মনে করিয়ে দিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, শুধু স্বাস্থ্যখাতেই নয়, যে কোনো খাতের অনিয়ম, অন্যায়, দুর্নীতি রোধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জিরো টলারেন্স নীতিতে অটল।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক করোনার এ সংকটে দেশের কয়েকটি জেলায় বন্যা দেখা দেওয়ায় তাদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের আহ্বান জানান।

হাসপাতালগুলোর ব্যবস্থাপনা এবং সমন্বয় বৃদ্ধিতে স্বাস্থ্যবিভাগের দৃষ্টি আকর্ষণ করে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, বিভিন্ন গবেষণা ও গণমাধ্যমের রিপোর্ট অনুযায়ী করোনায় আক্রান্ত অনেক রোগী বাসাবাড়িতে চিকিৎসা নিচ্ছেন, তাদের সেবা এবং প্রয়োজনীয় ডাক্তারি পরামর্শ পেতে টেলি-মেডিসিন সেবা ও হটলাইনে সেবার মান বাড়ানোর অনুরোধ করছি।

'করোনার এমন সংক্রমণ কাছের মানুষ দূরে চলে যায়, মুহূর্তেই প্রিয়জন অচনা হয়ে যায়। মা-বাবা কিংবা স্বামী স্ত্রীকে হাসপাতালে রেখে চলে যাচ্ছে। আবার মৃত্যুর পর কেউ কাছে আসছে না'- এমন করুন মর্মস্পর্শী বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, পুরোটা জীবন প্রিয়জনের জন্য করে শেষ বিদায় নিচ্ছেন প্রিয় মানুষের স্পর্শহীনতায়, মমতার বন্ধনহীন এসব দৃশ্য।

মন্ত্রী বলেন, রোগীর মৃত্যুর ৩ ঘণ্টা পর থেকে মরদেহ থেকে সংক্রমণ ছড়ানোর সুযোগ নেই, এ রোগ অভিশাপ নয়, নিজেকে সুরক্ষিত রেখে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নিয়ম মেনে দাফন কাফন করতে পারে আপনজনেরা।

তিনি জানান, বর্তমানে ৬৬টি ল্যাবে টেস্ট করোনা হচ্ছে, এ সুবিধা সম্প্রসারণের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি হাসপাতালসহ অন্যান্য সংশ্লিষ্টদের জনস্বার্থে পিসিআর ল্যাব স্থাপনে উদ্যোগ নেওয়ারও আহ্বান জানান মন্ত্রী।

মানবকণ্ঠ/আরএস



poisha bazar

ads
ads