লিবিয়ায় বাংলাদেশি হত্যার ঘটনায় ভৈরবে গ্রেফতার ৪

লিবিয়ায় বাংলাদেশি হত্যার ঘটনায় ভৈরবে গ্রেফতার ৪
- ফাইল ছবি

poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ০৩ জুন ২০২০, ২১:২৫

লিবিয়ায় বাংলাদেশি হত্যার ঘটনায় কিশোরগঞ্জের ভৈরবের চারজনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

বুধবার (৩ জুন) দুপুরে ভৈরব র‌্যাব ক্যাম্পে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ‌্যমে র‌্যাব-১৪ ময়মনসিংহ ক্যাম্পের সিও লে. কর্নেল মোহাম্মদ এফতেখার উদ্দিন এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

লে. কর্নেল মোহাম্মদ এফতেখার উদ্দিন জানান, গ্রেফতারকৃতরা উপজেলার শম্ভুপুর এলাকার মৃত আব্দুল আহাদ মিয়ার ছেলে হেলাল মিয়া ওরফে হেলু (৪৫), তাতারকান্দি এলাকার মৃত আব্দুর রশিদের ছেলে খবির উদ্দিন (৪২), লক্ষীপুর এলাকার মৃত সুরুজ মিয়া সরকারের ছেলে শহিদ মিয়া (৬১) ও শম্ভুপুর এলাকার জাফরের স্ত্রী মুন্নি আক্তার রুপসী (২৫)।

লে. কর্নেল মোহাম্মদ এফতেখার উদ্দিন আরও জানান, মঙ্গলবার (২ জুন) রাতে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে র‌্যাব-১৪ এর ভৈরব ক্যাম্পের সদস্যরা তাদের গ্রেফতার করেন।

বিদেশে কর্মসংস্থানের মিথ‌্যা আশ্বাস ও প্রলোভন দেখিয়ে বিদেশি চক্রের সঙ্গে যোগসাজসে তারা অবৈধভাবে বাংলাদেশি নাগরিকদের বিভিন্ন দেশে পাঠিয়ে আসছে। গ্রেফতারকৃতরা লিবিয়াতে অবৈধভাবে শ্রমিক পাঠানোর মূল হোতা হিসেবে কাজ করতেন।

তারা বাংলাদেশি শ্রমিকদের বিভিন্ন প্রলোভনের ফাঁদে ফেলে তিন-চার লাখ টাকার বিনিময়ে লিবিয়ার উদ্দেশ্যে নিয়ে যেতেন। মানবপাচারকারী দলের সদস্যরা সেখান থেকে ইউরোপের বিভিন্ন দেশে পাঠানোর কথা বলে তাদেরকে জিম্মি করতেন। পরে শারীরিক নির্যাতনের ভিডিও তাদের পরিবারের নিকট পাঠিয়ে অতিরিক্ত টাকার জন‌্য মুক্তিপণ দাবি করতেন।

এর আগে লিবিয়ায় হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় নিহত সাদ্দাম হোসেন আকাশের বড় ভাই মোবারক হোসেন বাদী হয়ে গত রোববার (৩১ মে) দুপুরে সাতজনকে আসামি করে ভৈরব থানায় মামলা করেন। এতে ভৈরবের মানবপাচারকারী তানজিরুলকে প্রধান আসামি এবং আজ্ঞাত আরও ৭-৮ জনকে আসামি করা হয়।

মামলা দায়েরের পর ভৈরব থেকে সিআইডি মো. বাহারুল আলম ওরফে বাচ্চু মিলিটারিকে গ্রেফতার করা হয়। পরে তাকে পাঁচদিনের রিমান্ডে নিলে তার দেওয়া তথ্য মতে র‌্যাব অভিযান চালিয়ে বাকি তিনজনকে গ্রেফতার করে।

মানবকণ্ঠ/এআইএস




Loading...
ads






Loading...