করোনায় একদিনে মৃত্যুর সব রেকর্ড ছাড়াল

- ফাইল ছবি

poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ১৪ জানুয়ারি ২০২১, ১০:৩০,  আপডেট: ১৪ জানুয়ারি ২০২১, ১০:৫১

বিশ্বে করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) একদিনে মৃত্যুর এখন পর্যন্ত সব রেকর্ড ছাড়িয়ে গিয়েছে। গত একদিনে মৃত্যু হয়েছে ১৬ হাজার ২৮৮ জনের এবং আক্রান্ত হয়েছেন ৭ লাখ ৪২ হাজার ৪০২ জন। একই সময়ে সুস্থ হয়েছেন সাড়ে চার লাখের বেশি মানুষ।

ওয়ার্ল্ডোমিটারস এর সর্বশেষ তথ্য বলছে, বৃহস্পতিবার সকাল পর্যন্ত বিশ্বে করোনায় সংক্রমিত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৯ কোটি ২৭ লাখ ৬৭ হাজার ৮৪৫ জন, মোট মারা গেছেন ১৯ লাখ ৮৬ হাজার ৬৯৬ জন।

বিশ্বে করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ যুক্তরাষ্ট্র। যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় সংক্রমিত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ২ কোটি ৩৬ লাখ ১৬ হাজার ৩৪৫ জন। দেশটিতে করোনায় মারা গেছেন ৩ লাখ ৯৩ হাজার ৯২৮ জন।

ক্ষতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় ভারতের অবস্থান দ্বিতীয়। ভারতে করোনায় সংক্রমিত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১ কোটি ৫ লাখ ১২ রহাজার ৮৩১ জন। দেশটিতে করোনায় মারা গেছেন ১ লাখ ৫১ হাজার ৭৬৫ জন।

ব্রাজিল আছে তৃতীয় অবস্থানে। ব্রাজিলে করোনায় সংক্রমিত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৮২ লাখ ৫৭ হাজার ৪৫৯ জন। দেশটিতে করোনায় মারা গেছেন ২ লাখ ৬ হাজার ৯ জন।

তালিকায় রাশিয়ার অবস্থান চতুর্থ। ফ্রান্স পঞ্চম। যুক্তরাজ্য ষষ্ঠ। তুরস্ক সপ্তম। ইতালি অষ্টম। স্পেন নবম। জার্মানি দশম। তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান ২৭তম।

গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। চীনে করোনায় প্রথম কোনো রোগীর মৃত্যু হয় চলতি বছরের ৯ জানুয়ারি। তবে তার ঘোষণা আসে ১১ জানুয়ারি। চলতি বছরের ১৩ জানুয়ারি চীনের বাইরে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয় থাইল্যান্ডে। পরে বিভিন্ন দেশে করোনা ছড়িয়ে পড়ে।

করোনার প্রাদুর্ভাবের পরিপ্রেক্ষিতে ৩০ জানুয়ারি বৈশ্বিক স্বাস্থ্য জরুরি অবস্থা ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। গত ২ ফেব্রুয়ারি চীনের বাইরে করোনায় প্রথম কোনো রোগীর মৃত্যুর ঘটনা ঘটে ফিলিপাইনে।

এরই মধ্যে কয়েকটি কোম্পানির টিকার অনুমোদন দিয়েছে বিশ্বের বিভিন্ন দেশ। এরই মধ্যে বেশ কয়েকটি দেশ টিকা প্রয়োগ শুরু করেছে। বাংলাদেশেও চলমি মাসের মধ্যে টিকা আসার কথা জানিয়েছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।

মানবকণ্ঠ/এসকে






ads