সোয়া দুই কোটির বেশি করোনা রোগী সুস্থ

- ফাইল ছবি

poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:২৯,  আপডেট: ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:৩৫

চীনের উহান শহর থেকে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) প্রতিদিন যেমন মৃত্যু ও আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। সেইসঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে সুস্থ হওয়ার সংখ্যাও। অনেকে করোনা জয় করে সুস্থ হয়ে উঠেছেন। এই সংখ্যাও কিন্তু কম নয়। বিশ্বে এখন পর্যন্ত ২ কোটি ৯৭ লাখ ২৩ হাজার মানুষ ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন দুই কোটি ১৫ লাখের বেশি মানুষ।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যানুযায়ী, বুধবার সকাল পর্যন্ত বিশ্বে করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২ কোটি ৯৭ লাখ ২৩ হাজার ৫৬৪ জন। মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৯ লাখ ৩৯ হাজার ১৩৭ জন। সংক্রমণ থেকে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন দুই কোটি ১৫ লাখ ৩৮ হাজার ৬৪ জন।

কোভিড-১৯ এ গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরও ৬ হাজার জনের মৃত্যু হয়েছে। এই সময়ে আরও ২ লাখ ৭৮ হাজার ৮৫৬ মানুষ ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়েছেন। সুস্থ হয়েছেন দুই লাখ ৬১ হাজারের বেশি মানুষ।

করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে সংক্রমণ ও মৃত্যু বেশি হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। যুক্তরাষ্ট্রের পরেই সংক্রমণে এগিয়ে রয়েছে লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল, ভারত, রাশিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, পেরু, মেক্সিকো, কলম্বিয়া, চিলি এবং স্পেন।

আক্রান্ত ও মৃত্যুতে যুক্তরাষ্ট্রের ধারে-কাছে নেই কোনো দেশ। সেখানে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৬৭ লাখ ৮৮ হাজার ১৪৭ জন। এর মধ্যে মারা গেছেন ২ লাখ ১৯৭ হাজার।

ব্রাজিলকে পেছনে ফেলে দ্বিতীয় অবস্থানে উঠে এসেছে প্রতিবেশি দেশ ভারত। সেখানে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৫০ লাখ ১৮ হাজার ৩৪ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৮২ হাজার ৯১ জনের।

তৃতীয় অবস্থানে থাকা লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত করোনায় ৪৩ লাখ ৮৪ হাজার ২৯৯ জন আক্রান্ত হয়েছে। মৃত্যু হয়েছে এক লাখ ৩৩ হাজার ২০৭ জনের।

চতুর্থ অবস্থানে থাকা রাশিয়ায় এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১০ লাখ ৭৩ হাজার ৮৪৯ জন। এর মধ্যে মারা গেছেন ১৮ হাজার ৭৮৫ জন।

সংক্রমণে ৫ম অবস্থানে থাকা পেরুতে আক্রান্ত ও মৃত্যু বাড়ছে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৭ লাখ ৩৮ হাজার ২০ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৩০ হাজার ৯২৭ জনের।

বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত ৩ লাখ ৪১ হাজার ৫৬ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। দেশে করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৪ হাজার ৮০২ জনের। আর সুস্থ হয়ে উঠেছেন দুই লাখ ৪৫ হাজার ৫৯৪ জন।

মানবকণ্ঠ/এসকে





ads







Loading...