কারখানার বিষাক্ত গ্যাস ছড়িয়ে ভারতে ৯ জনের মৃত্যু


poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ০৭ মে ২০২০, ১১:৪৯,  আপডেট: ০৭ মে ২০২০, ১২:০৪

ভারতের একটি কারখানা থেকে বিষাক্ত গ্যাস ছড়িয়ে পড়ে অন্তত ৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। বুধবার গভীর রাতে দক্ষিণ ভারতের অন্ধ্র প্রদেশে বিশাখাপত্তমের কাছে এলজির একটি পলিমার প্ল্যান্ট থেকে বিষাক্ত রাসায়নিক গ্যাস ছড়িয়ে পড়লে ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, ওই কারখানা থেকে যখন স্টাইরিন গ্যাস ছড়ানো শুরু হয়, তখন আশপাশের গ্রামগুলোর বাসিন্দারা ঘুমের মধ্যে। ওই এলাকা থেকে অন্তত ৩০০ মানুষকে অসুস্থ অবস্থায় হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তারা চোখে জ্বলুনি ও শ্বাসকষ্টের মত সমস্যা হওয়ার কথা বলেছেন।

এলজি পলিমার ইন্ডিয়া প্রাইভেট লিমিটেড নামের ওই কারখানার কাছে অগ্নিনির্বাপণের গাড়ি, অ্যাম্বুলেন্স ও পুলিশ সদস্যদের প্রস্তুত রাখা হয়েছে। আশপাশের কয়েকটি গ্রামের বাসিন্দাদের সরিয়ে ফেলা হচ্ছে।

অন্ধ্র প্রদেশ দূষণ নিয়ন্ত্রণ বোর্ডের কর্মকর্তা রাজেন্দ্র রেড্ডিকে উদ্ধৃত করে বিবিসি লিখেছে, এলজির কারখানা থেকে যে গ্যাস ছড়িয়েছে, সেটা স্টাইরিন। সাধারণ ওই গ্যাস শীতল করে তরল অবস্থায় রাখা হয়।

১৯৬১ সালে ওই কারখানা যখন চালু হয়, তখন এর নাম ছিল হিন্দুস্তান পলিমারস। পরে ১৯৯৭ সালে দক্ষিণ কোরিয়ার এলজি কেমিক্যালস তা অধিগ্রহণ করে। তখন এর নাম হয় এলজি পরিমারস ইন্ডিয়া।

বিবিসি লিখেছে, করোনা ভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে গত ২৪ মার্চ ভারতে লকডাউন শুরু হলে এলজির ওই কারখানাও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল। লকডাউন শিথিল হওয়ায় বুধবার রাতে ওই প্ল্যান্ট খোলার প্রস্তুতি শুরু হয়। তখনই গ্যাস নির্গমণের ঘটনা ঘটে।

মানবকণ্ঠ/আরবি





ads







Loading...