সুশান্তকে হত্যা করেছে দাউদ ইব্রাহিম‍!

- ফাইল ছবি

poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ১১ জুলাই ২০২০, ১৬:০৩

গত মাসে মুম্বাইয়ে নিজের বাড়িতে আত্মহত্যা করেন বলিউডের উদীয়মান তারকা সুশান্ত সিং রাজপুত। যদিও বলা হচ্ছে খুব বেশি হতাশা থেকে তিনি আত্মহত্যা করেছেন, তবে এখনও এই ঘটনার প্রকৃত কারণ জানা যায় নি। সুশান্তের মৃত্যুকে ঘিরে এখনও চলছে নানা ধরনের বিশ্লেষণ। এরই মধ্যে চাঞ্চল্যকর তথ্য সামনে আনলেন ভারতের সাবেক গোয়েন্দা কর্মকর্তা এন কে সুদ। তার দাবি, সুশান্তের আত্মহত্যার ঘটনার সঙ্গে আন্ডারওয়ার্ল্ডের ডন দাউদ ইব্রাহিমের যোগসূত্র রয়েছে।

ইন্ডিয়ান সিকিউরিটি রিসার্চ গ্রুপ নামের একটি ইউটিউব চ্যানেলে এন কে সুদ এক ভিডিওবার্তায় বলেন, সুশান্তের অপমৃত্যু আত্মহত্যা নয়, হত্যা; যার সঙ্গে দাউদ ইব্রাহিমের যোগসূত্র রয়েছে।

সুদের দাবি, ঘটনাটি নিখুঁতভাবে ছক কষে ঘটানো হয়েছে। ডন দাউদ ইব্রাহিম এখন মুম্বাইয়ে না থাকলেও এখনও তার প্রভাব আছে বলিউডে। পেশীবল, অর্থ ও উচ্চপদে আসীনদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ যোগাযোগের মাধ্যমে দাউদ এখনও মুম্বাইয়ের অপরাধজগৎকে নিয়ন্ত্রণ করেন।

সাবেক এই গোয়েন্দা কর্মকর্তার মনে করেন, দাউদের কোনো প্রতিনিধির হাতে সুশান্তের খুন হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। এমনিতে গত কয়েক মাসে সুশান্তকে হুমকি দেয়া হচ্ছিল। এ জন্য তিনি প্রায় ৫০ বার সিমকার্ড বদলেছিলেন। কেউ তাকে খুন করে ফেলতে পারে, এ আশঙ্কায় অভিনেতা গাড়িতে ঘুমাতেন।

সুদ আরও বলেন, পেশাদারেরা সুশান্তকে খুন করেছে। তার যুক্তি, অভিনেতার মৃত্যুর আগের দিন সিসিটিভি ক্যামেরা বন্ধ করে দেয়া থেকে শুরু করে, ডুপ্লিকেট চাবি হারিয়ে যাওয়ার মতো অনেক তথ্যপ্রমাণ রয়েছে, তা দেখিয়ে দেয়, কেউ অত্যন্ত ঠান্ডা মাথায় সুশান্তের খুনের ছক কষেছে।

গত ১৪ জুন বান্দ্রার কার্টার রোডের অ্যাপার্টমেন্ট থেকে ৩৪ বছর বয়সী সুশান্তের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ময়নাতদন্তের রিপোর্টে আত্মহত্যার কথা বলা হলেও সুশান্তের পরিবারের অভিযোগ, তাদের সন্তানকে সুপরিকল্পিতভাবে খুন করা হয়েছে।

মানবকণ্ঠ/এসকে





ads






Loading...