ক্ষণিকের জন্য ‘মদ-উদযাপন’ বন্ধ রাখল অস্ট্রেলিয়া


  • অনলাইন ডেস্ক
  • ১৭ জানুয়ারি ২০২২, ১১:৫০

অ্যাশেজ জিতেছে অস্ট্রেলিয়া, তাতে কম-বেশি অবদান আছে দলের সবারই। শুরুর তিন ম্যাচে ব্রাত্য উসমান খাজাও চতুর্থ টেস্টে দলে এসেই করেছেন জোড়া সেঞ্চুরি। খেলেছেন শেষ ম্যাচেও। অ্যাশেজের উদযাপনে তার অধিকারটাও কম নয়। তবে মুসলিম হওয়ায় তার উদযাপনে বাধা হয়ে দাঁড়াতে পারত দলের ‘শ্যাম্পেন-উদযাপন’। অধিনায়ক প্যাট কামিন্সের কল্যাণে শেষমেশ তা হয়নি। তাকে উদযাপনের অংশ করে নিতে দলের ‘মদ-উদযাপন’ ক্ষণিকের জন্য বন্ধই রাখলেন তিনি।

রোববার (১৬ জানুয়ারি) শেষ ম্যাচে অস্ট্রেলিয়াকে ইংলিশরা রীতিমতো চোখরাঙানিই দিচ্ছিল। ২৭১ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে বিনা উইকেটে ৬৮ তুলে ফেলেছিল দলটি। এরপরই অবশ্য ম্যাচে ফেরে অজিরা। ৫৬ রানের ব্যবধানে তুলে নেয় সফরকারীদের ১০ উইকেট। তাতে শেষ ম্যাচেও ১৪৫ রানের বিশাল জয় পায় অজিরা, সিরিজটা জেতে ৪-০ ব্যবধানে, ধরে রাখে অ্যাশেজ।

ক্রিকেট ইতিহাসের সবচেয়ে পুরনো এই লড়াইয়ে জিতে অজিরা মাতে বাঁধভাঙ্গা উল্লাসে। শিরোপা মঞ্চে আনুষ্ঠানিক উদযাপনের সময় দেখা মেলে দারুণ এক নজিরের। অধিনায়ক কামিন্সের হাতে শিরোপা তুলে দেওয়ার সময় মঞ্চে উঠে আসছিল পুরো দল, দু’জনের হাতে ছিল দুটো শ্যাম্পেনের বোতল। তা দেখে কিছুটা দূরেই দাঁড়িয়ে ছিলেন খাজা। মুসলিম হিসেবে মদ ছোঁয়াতেও বারণ তার, সেটা মেনেই তিনি ছিলেন নিরাপদ দূরত্বে।

তবে বিষয়টা চোখে পড়তেই সতীর্থদের মদের ছিপি খুলতে বারণ করেন কামিন্স। উদযাপনে ডেকে আনেন খাজাকে। চলে শিরোপার উদযাপন, তোলা হয় ছবি। এরপরই নেমে গেছেন খাজা। তখন আবার নিজেদের শ্যাম্পেন-উদযাপন শুরু করেন কামিন্সরা।

তবে মুসলিম সতীর্থের জন্য কামিন্সরা ‘মদ-উদযাপন’ বন্ধ রেখে যে নজির স্থাপন করেছেন, তার ভূয়সী প্রশংসা চলছে এখন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। আন্তর্জালে সাড়া ফেলেছে সে ভিডিও ক্লিপ; বাহবা পাচ্ছেন অধিনায়ক কামিন্স, পাচ্ছে তার দলও।



poisha bazar


ads