বিসিবি বরাবর অভিযোগ করেছেন জাহানারা


  • অনলাইন ডেস্ক
  • ১১ জানুয়ারি ২০২২, ১৭:০৯,  আপডেট: ১১ জানুয়ারি ২০২২, ১৭:১৩

হঠাৎ করে উত্তাল দেশের নারী ক্রিকেট। গত ৮ জানুয়ারি মালয়েশিয়ায় অনুষ্ঠিতব্য আইসিসি কমনওয়েলথ গেমস-২০২২ এর নারী বাছাইপর্ব খেলতে দেশে ছেড়েছে বাংলাদেশ নারী জাতীয় ক্রিকেট দল। সে দলের মূল স্কোয়াডে জায়গা হয়নি অভিজ্ঞ অলরাউন্ডার জাহানারা আলমের। স্ট্যান্ডবাই হিসেবে রাখা হয়েছে তাকে। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড সরসরি কিছু না বললেও জানা গেছে, শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে বাদ পড়েছেন জাহানারা।

দল মালয়েশিয়া পৌঁছানোর আগেই ক্ষুব্ধ জাহানারা বিসিবিকে একটি চিঠি দিয়েছেন। অভিযোগ পত্রে তিনি লিখেছেন, নিজের অসন্তুষ্টে কথা। চিঠির সত্যতা নিশ্চিত করলেও ঠিক কী বিষয়ে এবং কাদের ওপর ক্ষুব্ধ হয়ে জাহানারা এই অভিযোগ পত্র দিয়েছেন, সেটি পরিষ্কার করেনি ক্রিকেট বোর্ড।

বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজন সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, জাহানার মতো অভিজ্ঞ ক্রিকেটারের কাছ থেকে পাওয়া চিঠি গুরুত্ব সহকারে দেখছে বোর্ড।

বোর্ডের একটি সূত্র অবশ্য জানিয়েছে, জিম্বাবুয়ে থেকে ফিরে বিসিবিকে যে চিঠি দিয়েছেন জাহানারা, সেখানে নির্বাচক মঞ্জুরুল ইসলাম, কোচ একেএম মাহামুদুল ইমনের বিপক্ষে পক্ষপাতের অভিযোগ এনেছেন। একই সঙ্গে তুলে ধরেছেন ড্রেসিংরুমের অনেক ঘটনা।

২০২২ নারী ওয়ানডে বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব খেলে জিম্বাবুয়ে গিয়েছিল নারী দল। সেখানে বেশ উজ্জ্বল ছিল জাহানারার পারফরম্যান্স। ছয় ম্যাচ খেলে নয়টি উইকেট নিয়েছেন এই ডানহাতি পেসার। এর মধ্যে দুই ম্যাচে নিয়েছিলেন তিনটি করে উইকেট।

এক নজরে আইসিসি কমনওয়েলথ গেমস-২০২২ এর নারী বাছাইপর্ব জন্য ঘোষিত স্কোয়ার্ড-

নিগার সুলতানা জৌতি (অধিনায়ক), রুমানা আহমেদ, সালমা খাতুন, ফারজানা হক, শামীমা সুলতানা, ফাহিমা খাতুন, রিতু মনি, মুর্শিদা খাতুন, নাহিদা আক্তার, শারমিন আক্তার, লতা মণ্ডল, সোবহানা মোস্তারি, ফারিহা ইসলাম, সানজিদা আক্তার ও সুরাইয়া আজমিম।

স্ট্যান্ডবাই: জাহানারা আলম, নুজহাত তাসনিয়া ও খাদিজা-তুল-কুবরা।



poisha bazar

ads
ads