বুরাহকে থামানোর টোটকা দিলেন হ্যামজেলউড


  • অনলাইন ডেস্ক
  • ১৯ নভেম্বর ২০২০, ১৮:৪০

সিরিজ ধরে রাখতেই অস্ট্রেলিয়া সফরে গিয়েছে ভারত। পূর্ণাঙ্গ সিরিজ হলেও, বর্ডার-গাভাস্কার ট্রফির টেস্ট সিরিজ নিয়েই যত আলোচনা। চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজে প্রথমটি খেলেই পিতৃত্বকালীন ছুটিতে চলে যাবেন ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলি। তার অনুপস্থিতিতে ভারত দল শক্তি হারাবে বটে।

তবে পেসার জসপ্রীত বুমরাহ দলে থাকতে তাদের যে আবার খুব একটা বেগও পোহাতে হবে না, সেটাও জানা আছে সবার। সবশেষ অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে ভারতের সিরিজ জয়ের পেছনে বড় অবদান ছিল বুমরাহর। এবারও তিনি যে ‘এক্স-ফ্যাক্টর’ হবেন সেটা মানছেন স্বয়ং অস্ট্রেলিয়ান পেসার জশ হ্যাজেলউড-ই।

তবে হ্যাজলউড পুরনো ইতিহাস থেকে শিক্ষা নিয়েছেন। তাই ভারতীয় এই ফাস্ট বোলারের কার্যকারিতা কমানোর একটি উপায় খুঁজে বের করেছেন তিনি। তার মতে, বুমরাহকে ক্লান্ত করে তুলতে পারলেই সুফল মিলবে। ২০১৭-১৮ বোর্ডার-গাভাস্কার ট্রফি জিতে ভারত নিজেদের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো সিরিজ জয় করে ফিরেছিল অস্ট্রেলিয়া থেকে। সেই সিরিজে ২১ উইকেট নিয়ে বুমরাহ ছিলেন সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি।

ভারতের পেস আক্রমণে বুমরাহর সঙ্গে আছেন মোহাম্মদ শামি, উমেশ যাদবরা। নতুন তারকা নবদ্বীপ সৈনিও তাদেও সঙ্গে থাকবেন। চোট কাটিয়ে ফিট হতে পারলে যোগ দেবেন অভিজ্ঞ ইশান্ত শর্মাও। সব মিলিয়ে দুর্দান্ত এক পেস আক্রমণ।

তবে হ্যাজলউড বললেন তাদেরও যত মাথা ব্যথা ওই বুমরাহকে নিয়েই, ‘বুমরাহ সম্ভবত সবচেয়ে এগিয়ে। বোলিং অ্যাকশনের কারণেই সে আলাদা। দিনভর একইরকম পেস ধরে রাখতে পারে সে। সিরিজজুড়ে চরম ধারাবাহিক। তাকে সামলানোই হবে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। সে নতুন বলে যেমন উইকেট নিতে পারে, পুরোনো বলেও রাখে কার্যকারিতা। তাকে নিয়ে ব্যাপারটি হলো, অনেক ওভার বোলিং করাতে বাধ্য করতে হবে তাকে। প্রথম দুই টেস্টেই তাকে ক্লান্ত করে তোলার চেষ্টা করতে হবে। তাহলে কাজ হতে পারে।’

গতবার দেশের মাটিতেই ভারতের কাছে হারের ক্ষত এখনো দগদগে অস্ট্রেলিয়ানদের মনে। হ্যাজলউডের বিশ্বাস, সেই সিরিজ হারই এবার তাদের দেবে বাড়তি প্রেরণা, ‘অস্ট্রেলিয়া-ভারত লড়াইকে এখন অ্যাশেজের পাশেই রাখতে হবে। গতবার এখানে এসে সিরিজ জিতে ভারত এই উত্তেজনায় বাড়তি মাত্রা যোগ করেছে। তারা সবশেষবার জিতেছে, দেশের মাটিতে আমরা খুব বেশি হারি না। আমরা তখন যথেষ্টই আঘাত পেয়েছিলাম। সে সময় কারা ছিল, আমরা জানি ও মনে রাখব। এবার সেটিই আমাদের প্রেরণা।’

 


poisha bazar

ads
ads