নবীনগরে 'কথার ফাঁদে ফেলে' ৮ম শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণ


poisha bazar

  • প্রতিনিধি, দৈনিক মানবকণ্ঠ
  • ২৬ নভেম্বর ২০২০, ২১:১৪

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার একইছড়া গ্রামে ৮ম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে তরিকুল ইসলাম (২৫) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

তিনি উপজেলার নাটঘর ইউনিয়নের একইছড়া গ্রামের তাজুল ইসলামের ছেলে।

বুধবার সকালে একইছড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

সূত্র জানায়, বুধবার আনুমানিক সকাল ৭টার দিকে প্রতিদিনের মতো ওই স্কুলছাত্রী এলাকার রাস্তা দিয়ে বাজারে যাওয়ার সময় কথার ফাঁদে ফেলে তারিকুল গ্রামের নির্মাণাধীন একটি নির্জন বাড়িতে নিয়ে যায়। পরে সেখানে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে থাকে। এলাকার পথচারীরা বিষয়টি টের পায়।

পরে এলাকাবাসী তারিকুলকে বিবস্ত্র অবস্থায় হাতেনাতে আটক করে শিবপুর ফাঁড়ি থানা পুলিশের কাছে হস্থান্তর করে।

জানা যায়, শিবপুর ফাঁড়ি থানায় ধর্ষক তারিকুলকে ধর্ষণের শিকার ওই স্কুলছাত্রীর পরিবার বিয়ে করে বিষয়টি মিমাংসার প্রস্তাব দেয়। সে প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় বুধবার রাতে তার বিরোদ্ধে নবীনগর থানায় একটি নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে ধর্ষণের মামলা দায়ের করেন।

নবীনগর থনার ওসি আমিনুর রশীদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চত করে জানান, ধর্ষণের ঘটনায় থানায় একটি মামলাও রুজু হয়েছে।

ধর্ষণের অভিযোগে তরিকুল ইসলাম নামে ওই যুবককে গ্রেফতার করে বৃহস্পতিবার সকালে জেল হাজতে পেরণ করা হয়েছে। ধর্ষণের শিকার ওই স্কুলছাত্রীকেও ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।






ads