অক্টোবরেই ডেঙ্গু আক্রান্ত শতাধিক


poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ৩০ অক্টোবর ২০২০, ১৯:৫৪,  আপডেট: ৩০ অক্টোবর ২০২০, ১৯:৫৭

আবার ফিরে এসেছে ডেঙ্গু। চলতি অক্টোবরেই শতাধিক আক্রান্তের খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে রাজধানীর একটি হাসপাতালে একজন চিকিৎসকের মৃত্যুও হয়েছে। বর্ষা শেষে যখন মশাবাহিত এই রোগের প্রকোপ কমতে শুরু করে সেই সময়ে এবার প্রাণঘাতী রোগটি বেশি দেখা দিয়েছে।

গত বছর জুনেই ঢাকায় ব্যাপকভাবে ডেঙ্গু আক্রান্ত হওয়া শুরু করে, জুলাই ও অগাস্টে এই রোগীর সংখ্যা নতুন রেকর্ড গড়ে। পরে সেপ্টেম্বর-অক্টোবর থেকে ডেঙ্গু আক্রান্তের সংখ্যা কমতে শুরু করে।

বাংলাদেশে ২০০০ সালে প্রথম ডেঙ্গু দেখা দেওয়ার পর গেল বছরই সবচেয়ে বেশি সংখ্যক মানুষ এতে আক্রান্ত হয় এবং মারা যায়। সরকারি হিসাবে লক্ষাধিক মানুষ আক্রান্ত এবং পৌনে দুইশর বেশি মানুষ মারা যায়, যদিও সারা দেশের হাসপাতাল ও চিকিৎসকদের দেওয়া তথ্য মতে এই সংখ্যা আরও অনেক বেশি।

এবার ডেঙ্গু নিয়ে আতঙ্ক থাকলেও তার আগেই গত মার্চ থেকে করোনাভাইরাস মহামারীর কারণে ঘরবন্দি হয়ে পড়ে মানুষ। টানা দুই মাসের লকডাউন পরিস্থিতি কাটিয়ে মানুষ বাইরে বেরোলেও এখনও পরিস্থিতি পুরোটা স্বাভাবিক হয়নি।

এরমধ্যে বর্ষাকাল শেষে এই অক্টোবরেই ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, জলবায়ু পরিবর্তনজনিত কারণে অক্টোবরে ভারী বৃষ্টি হওয়ায় ডেঙ্গু মশার বাহক এইডিস ইজিপ্টি জন্মেছে বেশি। সেই সঙ্গে ডেঙ্গুর প্রকোপও বেড়েছে।

ডেঙ্গু প্রতিরোধে বছরজুড়ে এইডিস মশা নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রম পরিচালনার পরামর্শ দিয়েছেন তারা।

এই পরিস্থিতিতে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন মশা নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রম আরও জোরদার করার কথা জানিয়েছে। তবে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের বিশেষ কোনো উদ্যোগের কথা এখনও জানা যায়নি।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও নিয়ন্ত্রণ কক্ষের তথ্য অনুযায়ী, জানুয়ারি থেকে ২৯ অক্টোবর বৃহস্পতিবার পর্যন্ত সারা দেশে ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৬০২ জন।

তাদের তথ্য বিশ্লেষণে জানা যায়, চলতি বছরের জানুয়ারিতে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হন ১৯৯ জন, ফেব্রুয়ারিতে ৪৫ জন, মার্চে ২৭ জন, এপ্রিলে ২৫ জন, মে মাসে ১০ জন, জুনে ২০ জন, জুলাইতে ২৩ জন, অগাস্টে ৬৮ জন ও সেপ্টেম্বরে ৪৭ জন।

আর ২৯ অক্টোবর পর্যন্ত ১৩৮ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। গত দশ দিনে দৈনিক ভর্তি রোগীর সংখ্যা বেড়েছে।

করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে নতুন করে ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাবে ছড়িয়ে পড়ছে আতঙ্ক।






ads