বিয়ে বাড়িতে বরযাত্রীবেশে চুরি করতেন তারা

বিয়ে বাড়িতে বরযাত্রীবেশে চুরি করতো তারা

poisha bazar

  • প্রতিনিধি, দৈনিক মানবকণ্ঠ
  • ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৮:৩১

সংঘবদ্ধ চোর চক্রের মূলহোতাসহ চক্রের সাত সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। গ্রেফতার চোর চক্রের সদস্যরা বিয়ে বাড়িকে টার্গেট করে দল বেধে চুরি করতো।

বুধবার রাতে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের নোয়াপাড়া, সিদ্ধিরগঞ্জের বাঘমারা ও ঢাকার ডেমরার পূর্ব বক্সনগর এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন— চোর চক্রটির মূলহোতা শাহজালাল ওরফে শাংখা (৩৫), আব্দুল কাদির জিলানী (১৯), সাদ্দাম (২৪), আরিফুল ইসলাম ওরফে মিঠু (২৮), নুর উদ্দিন ওরফে বাবু (২৯), সুজন (২৩) ও শাহিন মিয়া (৪০)।

এ সময় তাদের কাছ থেকে পাঁচটি অত্যাধুনিক স্মার্টফোন, একটি স্বর্ণের চেইন, এক জোড়া স্বর্ণের কানের দুল, একটি ল্যাপটপ ও নগদ পাঁচ হাজার নয়শ’ টাকা উদ্ধার করা হয়। বুধবার গভীর রাতে নারায়ণগঞ্জ ও ঢাকার ও বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে র‌্যাব-১১’র সিদ্ধিরগঞ্জের আদমজী নগর সদর দপ্তরের সহকারী পুলিশ সুপার ও অপস্ অফিসার নাজমুল হাসান জানান, গ্রেফতারকৃতরা দীর্ঘদিন যাবৎ ঢাকা, নারায়ণগঞ্জ, নরসিংদী ও কুমিল্লাসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় বিয়ে বাড়িতে বরযাত্রীর ছদ্মবেশে আবার কখনো গণপরিবহনে সাধারণ যাত্রীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকার, মূল্যবান স্মার্টফোন, ল্যাপটপ ও নগদ টাকা চুরি করতো।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ গ্রেফতার শাহজালাল ওরফে শাংখা জানায়, সে এই চক্রের মূলহোতা। চুরি কার্যক্রম পরিচালনার ক্ষেত্রে তারা বিয়ে বাড়িকে প্রধান টার্গেট হিসেবে নিতো। প্রাথমিকভাবে টার্গেট করার পর বিয়ে বাড়ি চিনে আসা এবং ওই বিয়ে বাড়ি ও বিয়ের দিন তারিখ সম্পর্কে যাবতীয় তথ্য সংগ্রহ করার জন্য তাদের দলের সদস্যদের মধ্য হতে একজনকে দায়িত্ব দেয়া হতো। পরে তারা বিয়ের নির্ধারিত তারিখে বরযাত্রীর ছদ্মবেশে বিয়ে বাড়িতে প্রবেশ করতো। বিয়ে বাড়ির বিভিন্ন ঘরে ঢুকে সুবিধাজনক সময়ে মূল্যবান জিনিসপত্র, স্বর্ণালংকার, স্মার্টফোন, ইলেকট্রনিক্স সামগ্রী ইত্যাদি চুরি করে নিয়ে যেতো। চুরির জিনিসপত্র বিয়ে বাড়ির বাইরে অবস্থানরত তাদের দলের অন্যান্য সদস্যের কাছে হস্তান্তর করে যেন মূল চোর ধরা না পড়ে। এছাড়াও বিয়ে বাড়িতে তাদের অন্যতম টার্গেট হচ্ছে শিশু ও কিশোরী। বিয়ে বাড়িতে অতিথিদের ভিড়ের মুখে টার্গেট করা শিশু ও কিশোরীদের গলা থেকে স্বর্ণের চেইন ছোঁ মেরে ছিড়ে নিয়ে থাকে। শিশু ও কিশোরীরা বিয়ে বাড়িতে বিভিন্ন আনন্দে মেতে থাকায় অসাবধানতাবশত এই চক্রের অন্যতম টার্গেট হতো।

মানবকণ্ঠ/আরবি




Loading...
ads






Loading...