বসন্তের দ্বিতীয় দিনে সড়কে ঝরল চার প্রাণ

গাজীপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৪
ছবি - প্রতিনিধি

poisha bazar

  • প্রতিনিধি, দৈনিক মানবকণ্ঠ
  • ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৪:১৪,  আপডেট: ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৪:১৮

গাজীপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় শনিবার চারজন নিহত এবং কমপক্ষে ৩০ জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে ময়মনসিংহের বিভাগীয় কমিশনারসহ তার চালক ও দেহরক্ষী রয়েছেন। তবে তাৎক্ষণিকভাবে নিহত ও আহত সকলের নাম জানা যায়নি।

শনিবার সকাল ১০টায় শ্রীপুর উপজেলার ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের মহাসড়ক পার হওয়ার সময় জৈনাবাজার ও গিলাবেড়াইদ এলাকায় সড়ক দুর্ঘটনায় দুইজন নিহত হয়েছে।

মাওনা হাইওয়ে থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আইয়ুব হাসান জানান, শনিবার সকাল ১০টার দিকে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের জৈনাবাজার এলাকায় এক বৃদ্ধ (৭০) মহাসড়ক পার হচ্ছিলেন। এ সময় ময়মনসিংহগামী একটি পিক-আপ তাকে চাপা দিলে তিনি ঘটনাস্থলেই নিহত হন। তার মরদেহ উদ্ধার করে মাওনা হাইওয়ে থানায় নেয়া হয়েছে।

ওই পুলিশ কর্মকর্তা আরও জানান, শনিবার সকাল পৌনে ৮টার দিকে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের গিলাবেড়াইদ এলাকায় অপর এক যুবক (২০) মহাসড়ক পার হচ্ছিলেন। এ সময় ময়মনসিংহ থেকে ঢাকাগামী একটি বাস তাকে ধাক্কা দিলে সে মাথায় গুরুতর আঘাত পায়। এতে সে ঘটনাস্থলেই মারা যায়।

মাওনা হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মঞ্জুরুল হক জানান, নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করে থানায় আনা হয়েছে ও পরিচয় জানতে বিভিন্ন স্থান খোঁজ নেয়া হচ্ছে। তাদের লাশ শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপালের মর্গে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে।

গাজীপুর সদর থানার ওসি আলমীগর ভূঁইয়া জানান, একই দিন সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের রাজেন্দ্রপুর এলাকায় ময়মনসিংহগামী এনা পরিবহনের যাত্রীবাহী একটি বাস সামনে থাকা একটি কাভার্ডভ্যানকে পেছন থেকে সজোরে ধাক্কা দেয়। এতে বাসটির সামনের অংশ দুমড়ে-মুচড়ে যায় এবং বাসের দুই যাত্রী নিহত ও কমপক্ষে ২৭জন যাত্রী আহত হন। কাভার্ডভানটিও কাত হয়ে পড়ে গেছে। তাদের উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

অপরদিকে, ময়মনসিংহ থেকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিশেষ সিনেট অধিবেশনে যোগ দিতে যাওয়ার পথে গাজীপুরের রাজেন্দ্রপুর এলাকায় ঢাকা ময়মনসিংহ মহাসড়কে এক সড়ক দুর্ঘটনায় ময়মনসিংহ বিভাগীয় কমিশনার খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান, তার গাড়ির চালক হেলালুর রহমান ও দেহরক্ষী আব্দুল বারেক আহত হয়েছেন। তাদেরকে উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আহত মুস্তাফিজুর রহমান মাথা হাত ও পায়ে জখম হয়েছেন এবং তার চালক ও দেহরক্ষী শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত পেয়েছেন। তবে তারা সকলেই অবস্থা আশঙ্কামুক্ত বলে জানিয়েছেন হাসপাতালের অবাসিক চিকিৎসক রফিকুল ইসলাম।

মানবকণ্ঠ/আরবি





ads







Loading...