বাঁশখালীতে ঘর নির্মাণকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৫

বাঁশখালীতে ঘর নির্মাণকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১৫
সংঘর্ষে আহত কয়েকজন - প্রতিনিধি

poisha bazar

  • সংবাদদাতা, দৈনিক মানবকণ্ঠ
  • ১৯ জানুয়ারি ২০২০, ১৪:৪৫

চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলার সরল ইউনিয়নের পূর্ব মিনজিরীতলা কাহারঘোনা এলাকায় জমি বিরোধকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে আহত হয়েছে অন্তত ১৫ জন।

রোববার (১৯ জানুয়ারি) সকাল ৯ টার দিকে এ ঘটনাটি ঘটে।  এতে আশংকাজনক অবস্থায় ৪ জনকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।  এ ঘটনায় উভয় পক্ষের মধ্যে পাল্টাপাল্টি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার সরল ইউনিয়নের পূর্ব মিনজিরীতলা কাহারঘোনা গ্রামের ৫নং ওয়ার্ড আইম্মার পাড়া এলাকার ছকুনতাজ বেগমের সাথে সাড়ে ৫ গন্ডা জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল একই এলাকার বদি আহমদ গংদের সাথে। এরই জের ধরে রোববার সকাল ৯ টার দিকে ছকুনতাজ বেগমের লোকজন বিরোধপূর্ণ জায়গায় ঘর নির্মাণ করতে গেলে প্রতিপক্ষ বদি আহমদের লোকজন বাঁধা প্রদান করে। এ সময় উভয় পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়লে অন্তত ১৫ জন আহত হয়।

আহতরা হলেন- ছকুনতাজ বেগম (৪২), ফাতেমা বেগম (৩৭), নুরুল ইসলাম (৬৫), মৌলভী ইদ্রিস (৫২), সৈয়দ নুর (৪৫), রোকেয়া গেম (৫৫), বাবুল (৪৪), হেলাল উদ্দিন (২৪), আবদুর রহিম (৫৫), বদি আলম (৪২), জাকের হোসেন (২৮), মাহামুদুল ইসলাম (৩২), পারিভিন আক্তার (২৯), আবুল হোসেন (২২)। আহতরা বাঁশখালী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা গ্রহণ করলেও আশংকাজনক অবস্থায় ৪ জনকে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করেছেন হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক।

বাঁশখালী হাসপাতালের জরুরী বিভাগে কর্মরত চিকিৎসক ডা. শাহিদ চৌধুরী ও ডা. আদনিন মওরিন বলেন, ‘মিনজিরীতলায় সংঘর্ষের ঘটনায় আহতরা বাঁশখালী হাসপাতালে চিকিৎসা গ্রহণ করেছেন। আশংকাজনক অবস্থায় ৪ জনকে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।’

এ ব্যাপারে বাঁশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. রেজাউল করিম মজুমদার বলেন, সরল ইউনিয়নের কাহারঘোনায় এলাকায় মারামারির ঘটনায় এখনো পর্যন্ত কোন পক্ষ লিখিত অভিযোগ দায়ের করেনি। অভিযোগ পেলেই তদন্ত পূর্বক আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মানবকণ্ঠ/এসকে





ads







Loading...