সময় পেরিয়ে গেলেও শেষ হয়নি বাঁধ নির্মাণ প্রকল্পের কাজ

মানবকণ্ঠ
ছবি - প্রতিনিধি

poisha bazar

  • প্রতিনিধি, দৈনিক মানবকণ্ঠ
  • ০৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ২০:৫৯

নির্ধারিত সময় সময় পেরিয়ে গেলেও শেষ হয়নি মাদারীপুরে নদীর জমি পুনঃরুদ্ধার ও তীর প্রতিরক্ষা প্রকল্পের কাজ। ২০১৮-১৯ অর্থ বছরে জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় আড়িয়াল খাঁ নদের ভাঙন থেকে ভূমি পুনঃরুদ্ধার ও মাদারীপুর শহরের রিভার ভিউ পার্ক সংরক্ষণ প্রকল্পের আওতায় ২৫০ মিটার নদী তীর প্রতিরক্ষার কাজ ঠিকাদারের চুক্তি অনুযায়ী ৩০ জুন ২০১৯ এর মধ্যে কাজ শেষ করার কথা।

কিন্তু ৩০ জুনের পর ঠিকাদার ১৮০ দিন সময় বর্ধিত করা হলে ঠিকাদারের প্রতিষ্ঠান হতে কোনো অতিরিক্ত অর্থ দাবি করা হবে না শর্তে না দাবি পত্র দিয়ে ৩১ ডিসেম্বর ২০১৯ পর্যন্ত বর্ধিত করার আবেদন করে।

জানা গেছে, আড়িয়াল খাঁ নদ খনন প্রকল্পের বালু দ্বারা ভরাট শহর রক্ষা বাঁধের পাশের সাবেক কালিকাপুর ট্রলার ঘাটস্থ আড়িয়াল খাঁ নদের বেশ কিছু অংশ ভরাট করা হয়। ভরাটকৃত অংশে ইকোপার্ক নির্মাণের জন্য ২০১৬ সালের ২৭ ডিসেম্বর সাবেক নৌ পরিবহনমন্ত্রী ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন।

পরবর্তিতে নৌ পরিবহনমন্ত্রীর প্রচেস্টায় ২০১৮-১৯ অর্থ বছরে ৫ কোটি ৯৭ লাখ ৯৮ হাজার টাকা ব্যয়ে বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় আড়িয়াল খাঁ নদের ভাঙন থেকে ভূমি পুনঃরুদ্ধার ও মাদারীপুর শহরের রিভার ভিউ পার্ক সংরক্ষণ প্রকল্পের আওতায় ২৫০ মিটার নদীর তীর প্রতিরক্ষা কাজের দরপত্র আহ্বান করে।

দরপত্রের প্রেক্ষিতে ডলি কনস্ট্রাশন লি., ইনফ্রাটেক (জেডি) সেনা কল্যান ভবন, ১৯৫ মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা দরপত্রে অংশগ্রহন করে সর্বনিম্ন দরদাতা হিসেবে ৫ কোটি ৮৪ লাখ ২৩ হাজার ৪১৬ টাকা দরে কাজ পায়। ঠিকাদারের চুক্তি অনুযায়ী ৩০ জুন ২০১৯ এর মধ্যে কাজ শেষ করার কথা। ৩০ জুনের পর ঠিকাদার ১৮০ দিন সময় অর্থাৎ ৩১ ডিসেম্বর ২০১৯ পর্যন্ত বর্ধিত করার আবেদন করলে বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত সময় বর্ধিত করে।

সোমবার সরেজমিন দেখা গেছে, ঠিকাদারের কনক্রিট ব্লক নির্মাণের কাজ ৭০ ভাগ শেষ হয়েছে। ঠিকাদারের প্রতিনিধি জানায়, নদীতে ব্লক ছাড়াও ১০ হাজার ৬৩টি জিও ব্যাগ ফেলে পরে ব্লক দ্বারা নদীর তীর সংরক্ষণের জন্য বাঁধ দেওয়া হবে। এ দিকে ঠিকাদারের বর্ধিত সময়ের বাকি আছে আর মাত্র ৩০ দিন। এর মধ্যে এই কাজ শেষ করা প্রায় অসম্ভব। এ প্রশ্নের কোনো জবাব দিতে পারেনি ঠিকাদারের প্রতিনিধি।

এ ব্যাপারে মাদারীপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী পার্থ প্রতিম সাহা জানান, এই প্রজেক্টের মেয়াদ ছিলো ডিসেম্বর-১৯ পর্যন্ত। তবে প্রজেক্টের মেয়াদ জুন-২০ পর্যন্ত বাড়ানোর জন্য মন্ত্রণালয়ে আবেদন করা হয়েছে। কাজেই মেয়াদ বাড়ানো হলে মেয়াদের আগেই এপ্রিল-২০ ( বর্ষা মওসুমের আগেই) এর মধ্যে আশা করি কাজ শেষ হবে।

মানবকণ্ঠ/আরবি




Loading...
ads





Loading...