মোহনগঞ্জে ভুল চিকিৎসার শিকার চার বছরের শিশু

মানবকণ্ঠ
ছবি - প্রতিবেদক।

poisha bazar

  • প্রতিনিধি, দৈনিক মানবকণ্ঠ
  • ১০ অক্টোবর ২০১৯, ১৫:৫৫,  আপডেট: ১০ অক্টোবর ২০১৯, ১৫:৫৯

মোহনগঞ্জ হাসপাতালে ভুল চিকিৎসার শিকার হয়েছে প্রীতম নামের চার বছরের এক শিশু। জেলার খালীয়াজুরী উপজেলার চাকুয়া ইউনিয়নের পাথরা গ্রামের পরিতোষ সরকারের সন্তান প্রীতম। বুধবার (৯ অক্টোবর) বিকালে প্রীতমকে ডান পা ভাঙ্গা অবস্থায় মোহনগঞ্জ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসেন তার বাবা।

ডা. সুবির সরকার প্রীতমের চিকিৎসায় পায়ের প্লাস্টারের জন্য জরুরী বিভাগে পাঠালে ডিউটিরত ডা.তানবীর হাসান জরুরী বিভাগে উপস্থিত না থাকায়, ওযার্ডবয় জামাল মিয়া বিষয়টি লক্ষ্য না করেই রোগীর ভাঙ্গা পা রেখে ভালো পা প্লাস্টার করে দেন। রাতে শিশুটির অবস্থার অবনতি হলে বৃহস্পতিবার সকালে তাকে নিয়ে তার বাবা মোহনগঞ্জ হাসপাতালে পুনরায় আসেন। জরুরী বিভাগের ময়না নামে চতুর্থ শ্রেণীর এক কর্মচারী প্রীতমের ভাল পায়ের প্লাস্টার খুলে ভাঙ্গা পা প্লাস্টার করে দেন।

টিএইচও নুর মোহাম্মদ শামছুর আলম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন,এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মানবকণ্ঠ/জেএস

 




Loading...
ads




Loading...