ওরশে গিয়ে গৃহবধূর সর্বনাশ


poisha bazar

  • প্রতিনিধি, দৈনিক মানবকণ্ঠ
  • ১৩ আগস্ট ২০১৯, ১১:৪৯

নরসিংদীর বেলাবতে একটি মাজার শরীফের ওরশে এসে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক নারী। বেলাব উপজেলার সররবাদ পশ্চিমপাড়া গ্রামের সামাদ লেংটার মাজারের পাশের একটি বাড়িতে এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে।

অভিযুক্ত ধর্ষক ওই বাড়ির মালিক মৃত মহব্বত আলীর ছেলে মকবুল । ওই নারী রাজবাড়ি জেলার পাংশা থেকে ওই ওরশে এসেছিলেন। এ ঘটনায় শুক্রবার দুপুরে অভিযুক্ত মহব্বতের বিরুদ্ধে বেলাব থানায় মামলা দায়ের করেছেন ওই নারী।

বেলাব থানার ওসি ফখরুদ্দিন ভূঁইয়া জানান, গত মঙ্গলবার থেকে সররাবাদ গ্রামের সামাদ লেংটার মাজারে ওরশ শুরু হয়। এর আগে গত শুক্রবার (২ আগস্ট) রাজবাড়ি থেকে ওরশে যোগ দিতে মাজারে এসে অবস্থান করতে থাকেন ওই নারী। ওরশ শরীফ উপলক্ষে মাজার শরীফ ও আশপাশের বাড়ির উঠানে গান শুরু হয়।

বৃহস্পতিবার রাতে মাজারের পাশের বাড়ির মকবুলের বাড়ির উঠোনে গান শুনতে যান ওই নারী। এক পর্যায়ে বাড়ির মালিক মকবুল ওই নারীকে তার ঘরে গিয়ে বিশ্রাম নিতে বলেন। এতে রাজি না হলেও জোর অনুরোধে তাকে হাত ধরে ঘরে নিয়ে যায় মকবুল।

পরে রাতে মকবুল ওই নারীকে ধর্ষণ শুরু করে। এতে ওই নারী চিৎকার করলেও গানের শব্দে কেউ শুনতে না পারায় কেউ বাঁচাতে এগিয়ে আসেননি। এসময় নিজেকে বাঁচাতে মকবুলের ঠোটে কামড় দিয়ে রক্তাক্ত জখম করেন ওই নারী। রাতেই ওই নারী উপস্থিত নারী পুরুষ ও স্থানীয় লোকজনকে ঘটনা জানালে তারা থানায় গিয়ে অভিযোগ দেয়ার পরামর্শ দেন।

বেলাব থানার ওসি ফখরুদ্দিন ভূঁইয়া বলেন, ধর্ষণের ঘটনায় ওই নারী বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছেন। ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য তাকে নরসিংদী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অভিযুক্ত আসামিকে গ্রেফতারের চেষ্টা চালানো হচ্ছে।

মানবকণ্ঠ/এফএইচ




Loading...
ads





Loading...