নোবিপ্রবিতে নবীন বিতর্ক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত


  • অনলাইন ডেস্ক
  • ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ২০:১৮

নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি) ডিবেটিং সোসাইটির আয়োজিত নবীন বিতার্কিকদের ‘ফ্রেশার্স লীগ ১০১’ এর ফাইনালে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে টিম দশমিক ১০ এবং রানারআপ হয়েছে টিম এলিক্সি। উক্ত প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে নোবিপ্রবির বিভিন্ন বিভাগের ২৬টি বিতার্কিক দল।

সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) নোবিপ্রবির বিএনসিসি ভবনের নিচ তলায় দুপুর দেড়টায়  নবীন বিতার্কিকদের নিয়ে উক্ত অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নোবিপ্রবির উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. দিদার উল আলম।

অনুষ্ঠানে উপাচার্য অধ্যাপক ড. দিদার উল আলম বলেন, নোবিপ্রবির সুনাম বৃদ্ধি জন্য কাজ করে যাচ্ছে নোবিপ্রবি ডিবেটিং সোসাইটি। সংগঠনটির কার্যক্রম ক্যাম্পাসের গন্ডি পেরিয়ে এখন সারাদেশে ছড়িয়ে পড়েছে। এসময়ে, তিনি মেধা বিকাশের জন্য পড়াশোনার পাশাপাশি বিতর্ক, খেলাধুলাসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক কাজের সঙ্গে যুক্ত থাকার পরামর্শ দেন।

এসময়ে আরও উপস্থিত ছিলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা বিজ্ঞান অনুষদের ডীন ও  প্রক্টর অধ্যাপক ড. নেওয়াজ মোহাম্মদ বাহাদুর, নোবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির প্রচার সম্পাদক সৈয়দ মোহাম্মদ সিয়াম, নোবিপ্রবি ডিবেটিং সোসাইটির মডারেটর ও ইংরেজি বিভাগের সহযোগি অধ্যাপক আফাসানা মৌসুমি।

ফাইনালের মোশন ছিল এই সংসদ শুধুমাত্র অর্থের জন্য কোন পণ্য বা সেবার বিজ্ঞাপনে সেলিব্রেটিদের অংশগ্রহণ সমর্থন করে না। প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে মোশনের বিরোধীদল ডিবিএ ডিপার্ট্মেন্টের বিতার্কিক  দল দশমিক ১০ এবং রানার্সআপ হয়েছে মোশনের সরকারদল ফার্মেসি ডিপার্মেন্টের বিতার্কিক দল এলিক্সির। প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে মোট ২৬টি দল।

প্রতিযোগিতার আয়োজন নিয়ে নোবিপ্রবি ডিবেটিং সোসাইটির সভাপতি ইফতিয়া জাহিন রাইদাহ বলেন, ১০১ একরের নোবিপ্রবিতে বিতর্ক চর্চার জন্য কাজ করে যাচ্ছে নোবিপ্রবি ডিবেটিং সোসাইটি। সেই কাজকর্মের ধারাবাহিকতায় ডিবেটিং সোসাইটির নবীন সদস্য নিয়ে আমরা আয়োজন করেছি সাংসদীয় বিতর্ক প্রতিযোগিতা "ফ্রেশাস লীগ ১০১"। মোট ২৬টি বিতর্ক দলের ৭৮ জন বিতার্কিকের তর্কযুদ্ধের ফাইনালের চ্যাম্পিয়ান ও রানার্সআপ দলের জন্য রইল শুভকামনা।

মানবকণ্ঠ/এমআই


poisha bazar