শিক্ষার্থীদের আবাসন ও পরিবহন ফি প্রত্যাহার দাবি


  • প্রতিনিধি, দৈনিক মানবকণ্ঠ
  • ২১ জুন ২০২১, ১৬:০৭

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) শিক্ষার্থীদের আবাসন ও পরিবহন ফি প্রত্যাহার এবং অবিলম্বে টিকা নিশ্চিত করে শিক্ষার্থীদের আবাসিক হল খোলার দাবি জানিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ।

সোমবার (২১ জুন) দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে এক সমাবেশে তারা এই দাবি জানায়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সনজিত চন্দ্র দাস ও সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন প্রমুখ।

সমাবেশে শিক্ষার্থীদের আবাসন ও পরিবহন ফি প্রত্যাহার এবং অবিলম্বে টিকা নিশ্চিত ছাড়াও মাদকমুক্ত ক্যাম্পাসের প্রশাসনিক নিশ্চয়তা, আবাসিক সংকট নিরসনে বিশ্ববিদ্যালয়ের মাস্টারপ্লান বাস্তবায়নের জন্য রোডম্যাপ প্রণয়ন, মেডিকেল সেন্টারের আধুনিকায়ন ও কোভিড-১৯ চিকিৎসার সুব্যবস্থার দাবি জানানো হয়

এসময় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সনজিত চন্দ্র দাস বলেন, করোনার কারণে দীর্ঘ সময় পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় শিক্ষার্থীরা নানা রকম মানসিক সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছে এবং অনেক শিক্ষার্থীর আত্মহত্যাও করেছে। আমাদের দাবি দ্রুততম সময়ের মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ভ্যাকসিন প্রদান করে বিশ্ববিদ্যালয়ের হল খোলে দিন, সকলকে সুন্দর একটি ক্যাম্পাস উপহার দিন। আপনাদের কারণে শিক্ষার্থীদের অনেক ক্ষতি হয়েছে। এই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কোনো মাদকসেবীদের আশ্রয়খানা হতে পারে না। এই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস কোনো দুর্নীতিবাজদের আশ্রয়খানা হতে পারে না।

তিনি বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স উন্নত করে শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করতে হবে এবং পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়সহ সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্যবিমার আওতায় আনতে হবে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকার কারণে শিক্ষার্থীরা আবাসন এবং পরিবহন সুবিধা গ্রহণ করছে না কিন্তু ভর্তি হতে এসে এসব ফি দিতে হচ্ছে। আমরা বিশ্ববিদ্যালয় প্রসাসনকে ধিক্কার জানিয়ে বলতে চাই, আপনারা অভিভাবক সূলভ আচরণ করতে ব্যর্থ হয়েছেন। আপনাদের শিক্ষার্থীবান্ধব যে ভূমিকা, সে ভূমিকা প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে। আমাদের প্রত্যাশা থাকবে অবিলম্বে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ফি প্রত্যাহার করবে, আর যদি প্রশাসন ফি প্রত্যাহার না করে আমরা মনে করব বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের নৈতিকতা ভুল পথে চলে গেছে।

প্রশাসনের সমন্বয়হীনতার কারণে শিক্ষার্থীরা টিকা থেকে বঞ্চিত উল্লেখ করে তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা সকল শিক্ষার্থীদের ভ্যাকসিনেশনের আওতায় আনার নির্দেশ দিয়েছেন। চীন থেকে যে টিকা এসেছে সেটা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। কিন্তু বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক শৈথিল্যতার কারণে, সমন্বয়হীনতার কারণে মেডিক্যাল ও ডেন্টাল কলেজের শিক্ষার্থীরা টিকা পেলেও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা টিকা পায়নি। সমাবেশ থেকে আমরা দাবি জানাচ্ছি অবিলম্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল শিক্ষার্থীকে টিকার আওতায় নিয়ে আসার ব্যবস্থা করবেন।

মানবকণ্ঠ/এমএ


poisha bazar

ads
ads