চীনে ফের করোনার প্রাদুর্ভাব, লকডাউন আরও ১০ অঞ্চল

মানবকণ্ঠ
- ছবি : সংগৃহীত

poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ১৬ জুন ২০২০, ১০:৩৬

ফের করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়ছে চীনে। নতুন করে শতাধিক করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ায় চীনে দ্বিতীয় ধাপে মহামারি করোনার প্রকোপ নিয়ে তদন্ত করা হচ্ছে বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

এদিকে বেইজিংয়ের আরও ১০টি এলাকা লকডাউন ঘোষণা করেছে চীন। নতুন করে করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতেই এ সিদ্ধান্ত  নিয়েছে বলে সোমবার দেশটির কর্তৃপক্ষ ঘোষণা দেয়।

দ্বিতীয় দফায় ফের ভাইরাসটির সংক্রমণ প্রকট হয়ে উঠতে থাকায় কঠোর সব বিধিনিষেধ নতুন করে বহাল করছে চীন।

এক সংবাদ সম্মেলনে সিটি কর্মকর্তা লি জুনজি বলেন, উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় হাইদিয়ান জেলায় এক পাইকারি বাজারে নতুন করে করোনা শনাক্ত পাওয়ার পরে বাজার ও এর আশেপাশের স্কুল বন্ধ থাকবে। সেইসঙ্গে ওই দশ এলাকার মানুষ লকডাউনের মধ্যে থাকবে বলে জানান তিনি।

দেশটির রাষ্ট্রীয় মিডিয়ার বরাত দিয়ে আল জাজিরা জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত ৪৯ জনের ১০ জন বহিরাগত। অন্যান্য ৩৯ জনেই বেইজিংয়ের স্থানীয়।

এর আগের দিন দেশটিতে একদিনে আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৫৭ জন। যা গত এপ্রিল মাসের পর চীনে একদিনে করোনায় আক্রান্তের সর্বোচ্চ সংখ্যা।

গত রবিবার দেশটির জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশনের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, রাজধানী বেইজিংয়ে প্রায় দু’মাস কেউ করোনাভাইরাস সংক্রমিত না হলেও গত চারদিনে সেখানে ৭৯ জন নতুন শনাক্ত হয়েছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক তেদ্রোস আধানম গ্যাব্রিয়েসুস সোমবার এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‌‌‘গত সপ্তাহে বেইজিংয়ে সংক্রমণের নতুন একটি গুচ্ছের কথা জানায় চীন। যে শহর টানা ৫০ দিন রোগী শনাক্ত হয়নি সেখানে কয়েকদিন ১০০টিরও বেশি সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। এই প্রাদুর্ভাবের উৎস এবং এর মাত্রা নিয়ে তদন্ত করা হচ্ছে।’

দ্বিতীয় দফায় প্রাণঘাতী এই ভাইরাসটির সংক্রমণের শঙ্কা নিয়ে সব দেশকে সতর্ক করে তেদ্রোস বলেন, ‘যে দেশগুলো করোনার সংক্রমণ ঠেকাতে সক্ষম হয়েছে বা যেসব দেশে তা নিয়ন্ত্রণে এসেছে, তাদেরও পুনরায় ভাইরাসটির সংক্রমণ শুরু হওয়ার বিষয়টি সম্পর্কে সতর্ক থাকতে হবে।’

মানবকণ্ঠ/এইচকে





ads







Loading...