ব্যাংককের ৬ জায়গায় বোমার বিস্ফোরণ


poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ০২ আগস্ট ২০১৯, ১৫:৫০

থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককে ছয়টি বোমার বিস্ফোরণ ঘটেছে। এমন সময় এ বিস্ফোরণ ঘটলো যখন ব্যাংককে আসিয়ান পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের সম্মেলন চলছে। এ ব্যাপারে দেশটির এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা বলেন, মোট তিন জায়গায় এ বিস্ফোরণ ঘটেছে। এতে চারজন আহত হয়েছেন।

আসিয়ান সম্মেলনে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য দেয়ার আগেই এ বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। বক্তব্যে গণতান্ত্রিক ধাঁচে ফিরে আসায় থাইল্যান্ডের প্রশংসা করা হয়েছে।

এছাড়া, একটি ডিভাইস বিস্ফোরণের আগেই উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় কূটনৈতিক অনুষ্ঠান বাধাগ্রস্ত হয়নি বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপি।

পুলিশের কর্নেল কামটোর্ন উচারোইন বলেন, চ্যাঙেং ওয়াটানা সরকারি ভবনে তিনটি বোমা বিস্ফোরণ ঘটেছে। এ ছাড়া চোং নোনসি এলাকায় আরও দুটি বিস্ফোরণ হয়েছে।

থাইল্যান্ডের ভয়ঙ্কর রাজনৈতিক সহিংসতার ইতিহাস রয়েছে। মার্চের বিতর্কিত নির্বাচনের পর দেশটি গভীরভাবে বিভক্ত হয়ে পড়েছে। এতে বেসামরিক সরকার হিসেবে জান্তারাই ক্ষমতা দখল করেছেন।

দেশের শান্তি ও ভাবমর্যাদা ধ্বংস করতে সহিংসতা উসকে দিতে অসৎ উদ্দেশ্যপ্রবণ লোকজন এমনটি ঘটিয়েছে বলে দাবি করেন জান্তা সরকারের প্রধান প্রায়ুত চান-ও-চা।

এমন একসময় এ বিস্ফোরণ ঘটেছে, যখন অ্যাসোসিয়েশন অব সাউথইস্ট এশিয়ান ন্যাশনের(আসিয়ান) কূটনীতিকরা এবং তাদের মার্কিন ও চীনা সমকক্ষরা শহরটিতে উপস্থিত রয়েছেন।

রাজধানী জুড়ে নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে দাবি করে প্রায়ুত চান-ও-চা বলেন, কেউ আতঙ্কিত হবেন না।

একটি বড় অনুষ্ঠানকে বিব্রতকর অবস্থায় ফেলে দিতে এ প্রতীকী হামলা চালানো হয়েছে। যাতে বড় কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

তবে বোমা বিস্ফোরণের উদ্দেশ্য নিয়ে কাল্পনিক কিছু না ভাবতে গণমাধ্যমের প্রতি আহবান জানিয়েছে থাই সরকার।

দেশটির উপপ্রধানমন্ত্রী প্রাউইট ওয়াঙসুওয়ান সাংবাদিকদের বলেন, এই বোমা হামলায় কতজন লোক জড়িত, আমরা তা এখনও জানতে পারিনি।

মানবকণ্ঠ/টিআর

 




Loading...
ads





Loading...