চমেকে 'স্কিল স্কুল এন্ড ওয়ার্কশপ কার্নিভাল' শেষ হলো

মানবকণ্ঠ
ছবি - প্রতিবেদক।

poisha bazar

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ১১ নভেম্বর ২০১৯, ১৯:০১

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজে দুই দিনব্যাপী 'স্কিল স্কুল এন্ড ওয়ার্কশপ কার্নিভাল' শেষ হয়েছে। ইন্টারন্যাশনাল ফেডারেশন অফ মেডিকেল স্টুডেন্ট এসোসিয়েশন, বাংলাদেশের আয়োজনে এ কর্মসূচিতে সারাদেশের ১৫ টি মেডিকেলের বিভিন্ন বর্ষের ১৬৫ জন শিক্ষার্থী এবং ইন্টার্ন ডাক্তার অংশগ্রহণ করেন।

গত ৭ এবং ৮ অক্টোবর অনুষ্ঠিত 'স্কিল স্কুল এন্ড ওয়ার্কশপ কার্নিভাল'র প্রথমদিন সকাল ৯টা থেকে দুপুর বারোটা পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হয় তিনটি চমকপ্রদ ওয়ার্কশপ। এর মাঝে ইমার্জেন্সী মেডিকেল ট্রেইনিং ওয়ার্কশপ পরিচালনা করেন ডাঃ রিভুরাজ চক্রবর্তী এবং ডাঃ মাসুদ করিম; 'নিষ্পাপ অটিজম ফাউন্ডেশন' এর অটিস্টিকস বাচ্চাদের পরিচর্যা বিষয়ক ওয়ার্কশপ পরিচালনায় ছিলেন প্রফেসর ডাঃ বাসনা মুহুরি এবং প্রয়োজনীয় সফটওয়্যার স্কিলস বিষয়ক ওয়ার্কশপ পরিচালনা করেন আইএফএমএসএ বাংলাদেশের সেক্রেটারি জেনেরাল আজমাইন ইকতেদার।
এরপর বিকাল ৩টা থেকে ৫টা অবধি প্রফেসর ডাঃ সুযত পাল ও ডাঃ মেহেরুন্নেসা খানম কর্তৃক পরিচালিত হয় অনুষ্ঠানের একটি অসাধারণ পর্ব -'কিভাবে একজন ভালো চিকিৎসক হওয়া যায়?'

দ্বিতীয় দিন সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত 'ইন্টারপ্রিটেশন অফ ইসিজি' নামক সেশন পরিচালনা করেন ডাঃ আনিসুল আওয়াল স্যার। এরপর দুপুর ২টায় অনুষ্ঠিত হয় মজাদার কুইজ পর্ব, যেখানে বিজয়ী হয়েছে চট্টগ্রাম মা ও শিশু মেডিকেল কলেজের ইমদাদ ও সাকিব, দ্বিতীয় স্থানে ছিলো চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের মারিয়া ও সেঁজুতি এবং তৃতীয় হয়েছে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের নিঝুম শীল ও মিনহাজ। বিকাল ৩টা থেকে ৫টা অবধি পরিচালিত হয় আরও তিনটি ওয়ার্কশপ। তন্মধ্যে, ডিপ্রেশন এবং দুশ্চিন্তা বিষয়ক সেশন পরিচালনায় ছিলেন ডাঃ পঞ্চানন আচার্যী ; যোগাযোগ-উপস্থাপনা-নেতৃত্ব বিষয়ক সেশনের পরিচালক ছিলেন ডাঃ আদনান মানান এবং ইউএনসহ অন্যান্য সংস্থায় পেশাগত সুযোগ বিষয়ক সেশন পরিচালনা করেছেন ডাঃ সরোয়ার আলম ও ডাঃ গোলাম দস্তগীর প্রিন্স।

এছাড়াও শর্টফিল্ম তৈরির প্রতিযোগিতায় শ্রেষ্ঠ শর্টফিল্ম 'দ্য লেবার রুম' তৈরি করে বিজয়ী হয় বারিন্দ মেডিকেল কলেজ; শ্রেষ্ট অভিনেতার পুরষ্কার পায় ঢাকা মেডিকেল কলেজেরর মেহরাব এবং শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর পুরষ্কার জিতে চট্টগ্রাম মেডিকেলে মালিহা।

এই অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন আইএফএমএসএ বাংলাদেশের ফাউন্ডিং সেক্রেটারি জেনেরাল ডাঃ আমিনুল কিবরিয়া এবং স্ট্যান্ডিং কমিটি অন হিউম্যান রাইটস এন্ড পিসের সাবেক ন্যাশনাল অফিসার ডাঃ সৈয়দা নাজমুন নাহার। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন চমেকের ইন্টার্ন চিকিৎসক পরিষদের সদস্যবৃন্দ।

মানবকণ্ঠ/এইচকে






ads
ads