করোনা আক্রান্তদের জন্য সুখবর দিল লন্ডনের বিজ্ঞানীরা

- ছবি: সংগৃহীত

poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ১৭ মে ২০২০, ১১:১৯

চীনের উহান থেকে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) এখন পর্যন্ত ৪৭ লাখ ২০ হাজারের বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। প্রতিদিনই এই সংখ্যা বেড়েই চলেছে। এরই মধ্যে আক্রান্তদের জন্য সুখবর দিলো লন্ডনের নতুন একটি গবেষণা।

সম্প্রতি ব্রিটিশ বিজ্ঞানীরা আবিষ্কার করেছেন, যেসব ওষুধে রক্ত পাতলা হয়ে যায় সেগুলো করোনা রোগীদের প্রাণ বাঁচাতে পারে। কারণ আক্রান্ত রোগীদের ফুসফুসে মারাত্মকভাবে রক্ত জমাট বাঁধার কারণেই অধিকাংশ রোগীর মৃত্যু হয়।

সম্প্রতি কোভিড-১৯ নিয়ে গবেষণা করতে গিয়ে এমন তথ্য উদঘাটন করেছেন লন্ডনের বিশেষজ্ঞরা। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের ক্ষেত্রে যদি রক্ত পাতলাকারী ওষুধ ব্যবহার করা যায় তবে করোনায় মৃত্যুর হার অনেকটাই কমিয়ে আনা সম্ভব হবে বলে মনে করছেন তারা।

ইংল্যান্ডের ন্যাশনাল হেলথ সার্ভিস জানিয়েছে, এ বিষয়ে হাসপাতালগুলোকে নতুন করে নির্দেশনা দেওয়া হবে। যাদের অবস্থা খুবই জটিল তাদের ক্ষেত্রে এ ধরনের ওষুধ প্রয়োগের নির্দেশনা দেওয়া হবে।

কোভিড-১৯ এবং রক্ত জমাট বেঁধে যাওয়ার মধ্যে সম্পর্ক খুঁজে পেয়েছেন রয়্যাল ব্রুম্পটন হসপিটালের একদল বিশেষজ্ঞ। তারা উচ্চতর প্রযুক্তির ক্যাট স্ক্যান ব্যবহার করে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত রোগীদের ফুসফুসের ছবি বিশ্লেষণ করে দেখেছেন। ছবিতে দেখা গেছে, এসব রোগীদের ফুসফুসে রক্ত প্রবাহ অনেক কম। এমনকি ফুসফুসের ছোট ছোট অংশ রক্ত জমাট বেঁধে থাকে।

সানডে টেলিগ্রাফকে বেশ কয়েকজন চিকিৎসক জানিয়েছেন, এ থেকেই সহজে ব্যাখ্যা করা যায় যে, কিছু রোগী কেন রক্তে অক্সিজেনের অভাবে লাঙ্গস ফেইলারে মারা যায়।

এদিকে লন্ডনের ইম্পেরিয়াল কলেজের অধ্যাপক ওপেনসো বলেছেন, আমরা এর আগে অনেক ভাইরাসের ক্ষেত্রেই রক্ত জমাট বাঁধার এমন ঘটনা দেখিনি। তবে রয়্যাল ব্রুম্পটনের চিকিৎসকরা বলছেন, রক্ত পাতলাকারী ওষুধ রোগীদের ক্ষেত্রে সতর্কতার সঙ্গে ব্যবহার করতে হবে।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য অনুয়ায়ী, শনিবার একদিনেই নতুন করে ৯৫ হাজার ৬০৩ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন, মৃত্যু হয়েছে ৪৩৬০ জনের। আর রোববার সকাল পর্যন্ত মোট নিহতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে তিন লাখ ১৩ হাজার ২২০ জনে এবং আক্রান্তের সংখ্যা ৪৭ লাখ ২০ হাজার ১৯৬ জন।




Loading...
ads






Loading...