কাশ্মীর ইস্যুতে মার্কিন বিবৃতি


poisha bazar

  • অনলাইন ডেস্ক
  • ০৬ আগস্ট ২০১৯, ১৫:২৫

ধারা ৩৭০ বিলোপের ফলে বদলে গেল ৬৯ বছরের ইতিহাস। ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীর দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে গেল।

এদিকে, কাশ্মীরের বিশেষ স্বায়ত্তশাসনের মর্যাদা কেড়ে নেয়ার সিদ্ধান্তে যারা ক্ষতিগ্রস্ত, তাদের সঙ্গে ভারতকে বসতে আহবান জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

মার্কিন বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়েছে, নয়াদিল্লি এই পদক্ষেপকে অভ্যন্তরীণ বিষয় হিসেবে আখ্যায়িত করেছে। কিন্তু কাশ্মীর সংকট সমাধানে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সাম্প্রতিক মধ্যস্থতার প্রস্তাবের বিষয়টি উল্লেখ করা হয়নি।

দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মরগ্যান ওরটাগুস বলেন, জম্মু ও কাশ্মীরের ঘটনাবলি আমরা নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করছি। রাজ্যটির সাংবিধানিক মর্যাদা সংশোধন এবং ইন্ডিয়ান ইউনিয়নের দুটি ভূখণ্ডে ভাগ করা সংক্রান্ত ঘোষণায় আমরা নজর রাখছি।

বিবৃতিতে কাশ্মীর ইস্যুতে ভারতের অবস্থানও উল্লেখ করা হয়েছে। যদিও এতে পাকিস্তানের অবস্থানের কথা বলা হয়নি।

ওরটাগুস বলেন, আমরা লক্ষ করেছি যে ভারত সরকার এসব পদক্ষেপকে একান্ত অভ্যন্তরীণ বিষয় বলে উল্লেখ করেছে। তবে অধিকৃত উপত্যকাটির পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন ওই মার্কিন কর্মকর্তা। তিনি বলেন, ধরপাকড়ের খবরে আমরা উদ্বিগ্ন। কাজেই ব্যক্তি অধিকারের প্রতি সম্মান প্রদর্শন ও আক্রান্ত সম্প্রদায়ের সঙ্গে আলোচনার আহবান জানাচ্ছি।

নিয়ন্ত্রণরেখায় স্থিতিশীলতা ও শান্তি বজায় রাখা দরকার বলে গুরুত্বারোপ করেন ওরটাগুস। মার্কিন বিবৃতিতে কাশ্মীরবিরোধী নিরসনে সহায়তা করতে ভারত ও পাকিস্তানের ভেতর মধ্যস্থতায় ট্রাম্পের প্রস্তাবের কথাও উল্লেখ করা হয়নি।

গত ২২ জুলাই এক বিবৃতিতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেন, কাশ্মীর বিরোধ নিরসনে সহায়তায় ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি তার কাছে আহবান জানিয়েছেন। যদিও পরবর্তী সময়ে ভারত এমন দাবি অস্বীকার করে। 

কিন্তু চলতি সপ্তাহে ট্রাম্প বলেন, তিনি কাশ্মীর বিরোধ নিরসনে প্রস্তুত, যদি দুই দেশ তার কাছে সহায়তা চায়।

মানবকণ্ঠ/টিআর

 




Loading...
ads





Loading...