২০০ মানুষ নিয়ে ডুবে গেলো নৌকা


  • অনলাইন ডেস্ক
  • ২৭ মে ২০২১, ১১:১৮

প্রায় ২০০ মানুষ নিয়ে নাইজেরিয়ায় একটি নৌকা ডুবে গেছে। ধারণা করা হচ্ছে, এদের সবাই মারা গেছে। বুধবার দেশটির উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে ওই দুর্ঘটনা ঘটেছে। উত্তরপশ্চিমাঞ্চলীয় কেব্বি প্রদেশে প্রাদেশিক গভর্নরের একজন মুখপাত্র এনবিসি নিউজকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নাইজেরিয়া এ ধরনের দুর্ঘটনা নতুন কিছু নয়। অতিরিক্ত যাত্রীবোঝাই এবং বাজে ব্যবস্থাপনা এবং সুরক্ষা না থাকায় সেখানে প্রায়ই এ ধরনের ঘটনা ঘটে থাকে। তবে বুধবারের ওই নৌকাডুবির ঘটনায় বহু লোকের মৃত্যু হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

স্থানীয় কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, একটি নৌকায় অতিরিক্ত যাত্রী বহন করে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। নৌকাটি নাইজার নদীতে ডুবে যাওয়ায় এর আরোহীদের কেউ বেঁচে নেই বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

কেন্দ্রীয় নাইজার রাজ্য এবং উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় কেবি রাজ্যের ওয়ারা এলাকায় থাকা অবস্থায় নৌকাটি ডুবে যায়। ন্যাশনাল ইনল্যান্ড ওয়াটারওয়েস অথরিটির স্থানীয় কর্মকর্তা ইউসুফ বিরমা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এই কর্মকর্তা জানান, ওই নৌকাটিতে প্রায় ১৮০ জন যাত্রীর ধারণা ক্ষমতা ছিল না। তারপরেও নৌকাটিতে অতিরিক্ত যাত্রী বোঝাই করা হয়েছিল। ফলে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে।

কেব্বি গভর্নরের একজন উপদেষ্টা ইয়াহইয়া সারকি জানান, প্রতিবেশী দেশ নাইজার থেকে প্রায় ২০০ যাত্রী নিয়ে আসছিল ওই নৌকাটি। কিন্তু মাঝপথেই ডুবে যায় স্থানীয়ভাবে তৈরি করা কাঠের ওই নৌকাটি। আমরা এখনও মৃতদেহ উদ্ধার করছি। এ মুহূর্তে সঠিক সংখ্যা বলা সম্ভব না।

সারকি আরও বলেন, ওয়ারার কাছে ওই নৌকাটি ডুবে যায়। এই শহরটি নাইজার নদীর অংশ কাইনজি হ্রদের কাছে অবস্থিত। ওয়ারা শহরের একজন বাসিন্দা কাসিমু ওমর ওয়ারা বলেন, অধিকাংশ যাত্রীই নাইজারে সম্প্রতি আবিষ্কার হওয়া গোল্ড ভেইন থেকে ফিরছিলেন।

তিনি বলেন, তারা সাধারণত সন্ধ্যায় যেতো এবং সকালে ওয়ারা ফিরে আসতো। তাদের অধিকাংশই ছোটখাটো ব্যবসায়ী, খাবারের দোকানি এবং স্থানীয় খনিশ্রমিক।


poisha bazar

ads
ads