জন্মনিরোধে গয়না!



  • অনলাইন ডেস্ক
  • ০৭ এপ্রিল ২০১৯, ১২:১৩

ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার লাগাম ধরতে মানবসভ্যতায় নারীরা জন্মনিরোধের পথ বেছে নিয়েছে। এর ফলে নারীর ক্ষমতায়নের পথ সুগম হয়। গত ৫০ বছর ধরে জন্মনিরোধের বিভিন্ন পদ্ধতি আবিষ্কার করেছেন চিকিৎসাবিজ্ঞানীরা। এবার নতুন একটি পদ্ধতি উদ্ভাবন করেছেন তারা। এই পদ্ধতিতে কানের দুল, হাতঘড়ি, আংটি অথবা গলার হারের মতো গয়না বা পরিধেয় অন্য অলংকারের মাধ্যমে জন্ম নিরোধ করা হবে।

এই পদ্ধতিতে জন্মনিরোধ পিল বা হরমোন থাকবে নারীর কানের দুল, হাতঘড়ি, আংটি অথবা গলার হার। যেখানে নারীরা সৌন্দর্য প্রকাশে গয়না পড়বেন সঙ্গে সঙ্গে তার জন্মনিরোধ পরিকল্পনাটিও সফল হবে। চিকিৎসাশাস্ত্র–বিষয়ক নেদারল্যান্ডসের খ্যাতনামা গবেষণা সাময়িকী জার্নাল অব কন্ট্রোলড রিলিজ–এ সম্প্রতি প্রকাশিত একটি গবেষণা নিবন্ধে এমনটি বলা হয়েছে।

গবেষণাটিতে এমন এক ধরনের প্রযুক্তি উদ্ভাবন করা হয়েছে, যাতে গয়না বা হাতঘড়ির মাধ্যমে শরীরে জন্মনিরোধক হরমোন প্রবেশ করানো যায়। ওই গয়নায় ছোট্ট একটি জায়গায় হরমোন রাখা হয়। সেটি ত্বকে আপনা-আপনিই শোষিত হয়। এরপর রক্তের মাধ্যমে তা শরীরে প্রবাহিত হয়। তবে মানুষের শরীরে এখনও এই পরীক্ষা করা হয়নি জানিয়ে গবেষকদলটি জানিয়েছে, আপাতত শূকর ও লোমহীন ইঁদুরের শরীরে ইতিমধ্যে এর সফল পরীক্ষা করা হয়েছে। এসব শূকর ও ইঁদুরের কানে জন্মনিরোধ লিভোনোজেস্ট্রিল হরমোনসমৃদ্ধ দুল পরানো হয়েছিল। পরীক্ষায় দেখা গেছে, তাদের ত্বকসংলগ্ন ছোট্ট একটি অংশ দিয়ে শরীরে যথেষ্ট পরিমাণে জন্মনিরোধক হরমোন ঢুকেছে।

মানবকণ্ঠ/এফএইচ



Loading...
ads

Loading...